বাড়িতে বসেই টিকা পেলেন একুশের নির্বাচনের ব্র‍্যান্ড অ্যাম্বাসেডর খর্বকায় ভাতৃদ্বয়

67

বর্ধমান: সংবাদমাধ্যমে খবর প্রকাশ হতেই নড়েচড়ে বসলেন প্রশাসনের কর্তারা। যুদ্ধকালীন তৎপরতায় করোনা টিকা দেওয়া হল নির্বাচন কমিশনের ব্র‍্যান্ড অ্যাম্বাসেডর বিশেষ চাহিদা সম্পন্ন খর্বকায় ভাতৃদ্বয়কে। সেজন্য অবশ্য তাঁদের ছুটতে হয়নি টিকাকরণ কেন্দ্রে। উলটে বৃহস্পতিবার তাঁদের বাড়িতেই পৌঁছে গেল মেডিকেল টিম। সেখানেই টিকার প্রথম ডোজ সম্পন্ন হয় সঞ্জীব মণ্ডল এবং মানিক মণ্ডলের।

পূর্ব বর্ধমানের কলানবগ্রামে বাড়ি সঞ্জীব মণ্ডল মানিক মণ্ডলের। করোনা অতিমারির মোকাবিলায় করোনা ভ্যাকসিন পাওয়ার আশায় দীর্ঘদিন টিকাকরণ কেন্দ্রে গিয়েও হতাশ হয়ে বাড়ি ফেরেন তাঁরা। সমস্যা সমাধানে প্রশাসনিক স্তরেও যোগাযোগ করেন একুশের নির্বাচনে মেমারি বিধানসভা কেন্দ্রের ব্র‍্যান্ড অ্যাম্বাসেডর খর্বকায় ভাতৃদ্বয়। যদিও হতাশা ছাড়া কিছুই জোটেনি তাদের ভাগ্যে। অবশেষে সংবাদমাধ্যমে প্রকাশ হয় তাদের হয়রানির কথা। এরপরেই মেডিকেল টিম নিয়ে তাঁদের বাড়ি পৌঁছোন মেমারির বিধায়ক মধুসূদন ভট্টাচার্য। সেখানেই ওই ভাতৃদ্বয়কে কোভিশিল্ডের প্রথম ডোজ দেওয়া হয় মেডিকেল টিমের তরফে।

- Advertisement -

বিধায়ক মধুসূদন ভট্টাচার্য বলেন, ‘বিষয়টি আমার জানা ছিল না। খবর পেয়েই ব্লক প্রশাসন উদ্যোগী হয়। দু’জনেই টিকা পেয়েছেন।’