সুশান্তের দিদির আবেদন খারিজ করল সুপ্রিম কোর্ট

151

মুম্বই: রিয়া চক্রবর্তীর দায়ের করা এফআইআরের বিরুদ্ধে সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হয়েও স্বস্তি নেই প্রয়াত অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের দিদি প্রিয়াঙ্কা সিংয়ের। শুক্রবার দেশের শীর্ষ আদালতের প্রধান বিচারপতি এসএ বোবদের নেতৃত্বাধীন বেঞ্চ এই পিটিশন খারিজ করে দেয়।

সুশান্তকে আত্মহত্যায় প্ররোচনা দেওয়ার অভিযোগ রয়েছে অভিনেতার এই দিদির বিরুদ্ধে। জানা গিয়েছে, সুশান্তকে ভুয়ো মেডিকেল প্রেসক্রিপশন সরবরাহ করে, অ্যানসাইটির ওষুধ পাইয়ে দিতে সাহায্য করার অভিযোগ রয়েছে তাঁর বিরুদ্ধে। গত সেপ্টেম্বরে সুশান্তের দুই দিদি, প্রিয়াঙ্কা সিং ও মীতু সিংয়ের বিরুদ্ধে অভিনেতাকে আত্মহত্যায় প্ররোচনা দেওয়ার অভিযোগে মুম্বই পুলিশের কাছে মামলা দায়ের করেছিলেন রিয়া চক্রবর্তী। গত বছর অগাস্টে মুম্বই পুলিশ শীর্ষ আদালতের রায় অনুযায়ী সেই মামলা সিবিআইয়ের হাতে তুলে দেয়। গত ১৫ ফেব্রুয়ারি বম্বে হাইকোর্ট মীতুর বিরুদ্ধে রিয়ার অভিযোগ খারিজ করে দিলেও প্রিয়াঙ্কার বিরুদ্ধে মামলা খারিজ করতে অস্বীকার করে। সেই রায়কে চ্যালেঞ্জ জনিয়ে প্রিয়াঙ্কা সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হয়েছিলেন। তবে হাইকোর্টের সেই রায়কে মান্যতা দিল সুপ্রিম কোর্ট। জানা গিয়েছে, সুশান্তের হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাট ঘেঁটে প্রিয়াঙ্কা সিংয়ের পাঠানো প্রেসক্রিপশনের প্রমাণ মিলেছে।

- Advertisement -

প্রসঙ্গত, গত ১৪ জুন মুম্বইয়ের বান্দ্রার ফ্ল্যাট থেকে অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয়। প্রাথমিক তদন্তে মুম্বই পুলিশ আত্মহত্যা বলে দাবি করলেও সুশান্তের মৃত্যু নিয়ে নানা জল্পনা শুরু হয়। আত্মহত্যা নাকি খুন? নানা প্রশ্ন দানা বাঁধতে থাকে সাধারণ মানুষের মনে। সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে এই মামলার তদন্তভার যায় সিবিআইয়ের হাতে। তবে এখনও সিবিআই নিশ্চিতভাবে জানায়নি আত্মহত্যাই করেছিলেন সুশান্ত নাকি কি কারণ রয়েছে তাঁর মৃত্যুর পেছনে। এদিকে তাঁর মৃত্যুর তদন্ত করতে গিয়ে বলিউডে মাদক যোগের বিষয়টিও সামনে আসে। অনেক নামজাদা অভিনেতা-অভিনেত্রীর নাম মাদক মামলায় জড়িয়ে পড়ে।