যৌন নির্যাতন নিয়ে বম্বে হাইকোর্টের রায়ে সুপ্রিম স্থগিতাদেশ

126
ছবিটি সংগৃহীত

নয়াদিল্লি: ত্বকের সঙ্গে ত্বকের স্পর্শ ছাড়া নাবালিকার পোশাকের ওপরে হাত দিলে পকসো আইনে সেটিকে যৌন নির্যাতন হিসেবে বিবেচনা করা হবে না। বম্বে হাইকোর্টের নাগপুর বেঞ্চের দেওয়া এই রায়ে স্থগিতাদেশ দিল সুপ্রিম কোর্ট। দেশজুড়ে চলা বিতর্কের মাঝে এদিন এই অভিযুক্তের মুক্তি আটকে দেয় শীর্ষ আদালত। সূত্রের খবর, এই মামলার প্রেক্ষিতে সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতি এসএ বোবদের ডিভিশন বেঞ্চ একটি নোটিশ জারি করেছে। সেখানে দু’সপ্তাহের মধ্যে অভিযুক্তের কাছে জবাব জানতে চাওয়া হয়েছে।

প্রসঙ্গত, রবিবার নাগপুরের এক নাবালিকার যৌন নির্যাতন মামলায় রায় শোনাতে গিয়ে বম্বে হাইকোর্টের তরফে রায় দেওয়া হয় শিশুর ত্বকে সরাসরি স্পর্শ না হলে, তা যৌন নির্যাতন হিসেবে গণ্য করা হবে না। পোশাকের ওপর দিয়ে স্পর্শ করলে সেটি পকসো আইনের আওতায় আসবে না। সেখানে আরও বলা হয়েছে, গোপনাঙ্গ স্পর্শ না করলে সেটি পকসো আইনে গণ্য হবে না। বম্বে হাইকোর্টের এই রায়ের পরই দেশজুড়ে বিতর্ক শুরু হয়। বুধবার এই রায়কে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে শীর্ষ আদালতের দ্বারস্থ হন অ্যাটর্নি জেনারেল কে কে বেণুগোপাল। তিনি জানান, এই রায় নেতিবাচক। ভবিষ্যতে এটি ভয়াবহ উদাহরণ হয়ে থাকবে। এরপরই মামলায় হস্তক্ষেপ করে শীর্ষ আদালত।

- Advertisement -