পুনর্ভবা নদী ও সংলগ্ন এলাকার পাখি নিয়ে গঙ্গারামপুরে প্রদর্শনী এবং সেমিনার

295

গঙ্গারামপুর: রবিবার গঙ্গারামপুরে পুনর্ভবা নদী ও সংলগ্ন এলাকার পাখি নিয়ে আলোকচিত্র প্রদর্শনী ও সেমিনার অনুষ্ঠিত হল। ইনোভেটিভ গ্রিন থটস্ অ্যান্ড লাইনস নামক পরিবেশপ্রেমী সংগঠনের উদ্যোগে ‘নদীটির নাম পুনর্ভবা, পাখিদের নাম কী?’ শীর্ষক এই আলোকচিত্র প্রদর্শনী ও সেমিনারের আয়োজন করা হয়। গঙ্গারামপুর পুরসভার অন্তর্গত ইন্দ্রনারায়ণপুর কলোনী এলাকার পুনর্ভবা নদী সংলগ্ন তেঁতুলতলা নদীর ঘাটে এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন আলোকচিত্রশিল্পী রাজর্ষি চৌধুরী, পরিবেশপ্রেমী তুহিনশুভ্র মণ্ডল, পরিবেশপ্রেমী সনাতন তামলী, সাহিত্যিক জয়ন্ত আচার্য, সাহিত্যিক তথা শিক্ষক দিব্যেন্দু সরকার সহ বিশিষ্টজনেরা।

মূলত গ্রাম বাংলার লুপ্তপ্রায় পাখি এবং পুনর্ভবা নদী সংলগ্ন এলাকার পাখিদের সম্পর্কে নতুন প্রজন্মকে অবগত করতে এই আলোকচিত্র প্রদর্শনীর আয়োজন করা হয়। এদিন আলোকচিত্রশিল্পী রাজর্ষি চৌধুরী পুনর্ভবা নদী সংলগ্ন এলাকার বেনে বৌ, ফটিক জল, কালাঘাড়  রাজন, নীলকণ্ঠ বসন্ত বৈরী, দোয়েল, কানি বক, খঞ্জনা, জলময়ূর, শামুখ খোল, তিলা মুনিয়া সহ অন্যান্য নদী নির্ভর পাখির চিত্র প্রদর্শনীতে তুলে ধরেন। সেইসঙ্গে উপস্থিত বিশিষ্ট ব্যক্তিরা এদিনের সেমিনারে পুনর্ভবা নদী নিয়ে বিশদে আলোচনা করেন।

- Advertisement -

এদিনের এই আলোক চিত্র প্রদর্শনী এবং সেমিনারে পরিবেশপ্রেমী মানুষজন সহ ছাত্র-ছাত্রীরা অংশগ্রহণ করেন। রাজর্ষি চৌধুরী বলেন, পুনর্ভবা নদী সংলগ্ন জলজ এবং স্থলজ পাখিদের ছবি আমি বিগত ১০ বছর ধরে তুলছি। মূলত পুনর্ভবা নদী এবং সংলগ্ন এলাকার পাখি আগামী প্রজন্মের কাছে তুলে ধরতে এই উদ্যোগ গ্রহণ করেছি। পরবর্তীতে আমার ছাত্র ছাত্রীদের অনুপ্রেরণায় আজ পুনর্ভবা নদী সংলগ্ন এলাকার পাখিদের নিয়ে বিশেষ আলোকচিত্র প্রদর্শনীর আয়োজন করা হয়েছে। সেই সঙ্গে পুনর্ভবা নদীকে নিয়ে বিশেষ সেমিনারের আয়োজন করা হয়েছে। মূলত নদী সংলগ্ন এলাকার পাখি এবং পুনর্ভবা নদী সম্পর্কে সাধারণ মানুষকে অবগত ও সচেতন করে তুলতে এই এই উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে।

তুহিনবানু বলেন, ইনোভেটিভ গ্রিন থটস্ অ্যান্ড লাইনস এর পক্ষ থেকে আজ পুনর্ভবা নদী সংলগ্ন এলাকার পাখিদের নিয়ে বিশেষ আলোকচিত্র প্রদর্শনীর আয়োজন করা হয়েছে। সেইসঙ্গে পুনর্ভবা নদী নিয়ে বিশেষ সেমিনারের আয়োজন করা হয়েছে। মূলত নদী সংলগ্ন এলাকার পাখিদের সম্পর্কে জনসচেতনতা তৈরি করতে এবং পুনর্ভবা নদীকে বাঁচাবার উদ্দেশ্যে এই বিশেষ আলোকচিত্র প্রদর্শনী ও সেমিনারের আয়োজন করা হয়েছে।