চোটের জন্য প্রস্তুতি টুর্নামেন্টে নেই সেরেনা

মেলবোর্ন : শিয়রে কড়া নাড়ছে অস্ট্রেলিয়ান ওপেন। পাল্লা দিয়ে বাড়ছে প্রতিযোগীদের মধ্যে চোট আঘাত। মঙ্গলবার পিঠের ব্যথায় কাবু হয়ে পড়েছিলেন রাফায়েল নাদাল। সেই তালিকায় এবার নতুন সংযোজন সেরেনা উইলিয়ামস।

 

- Advertisement -

শুক্রবার অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের ঘোষিত ক্রীড়াসূচি অনুযায়ী প্রথম রাউন্ডে সেরেনা খেলবেন লওরা সিগমুন্ডের বিরুদ্ধে। তার আগে অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের প্রস্তুতি টুর্নামেন্ট ইয়ারা ভ্যালি ক্লাসিকের সেমিফাইনালে শনিবার অ্যাশলে বার্টির বিরুদ্ধে নামার কথা ছিল সেরেনার। কিন্তু ডান কাঁধের চোটে কাবু ২৩ বারের গ্র্যান্ড স্ল্যাম জয়ী ম্যাচের ২৪ ঘণ্টা আগে নাম প্রত্যাহার করে নেন। তবে চোটের সমস্যা মাথাচাড়া দেওয়ার আগে ছন্দেই ছিলেন ৩৯ বছরের মার্কিন তারকা। শুক্রবার এই টুর্নামেন্টের কোয়ার্টার ফাইনালে ড্যানিলি কলিন্সকে ৬-২, ৪-৬, ১০-৬ সেটে হারিয়েছেন সেরেনা।

গতবছর গোড়ালির চোটে মাঝপথেই ফরাসি ওপে ছেড়েছিলেন। তা থেকে সুস্থ হয়ে কোর্টে ফিরেই ফের ধাক্কা। সেই সমস্যার মধ্যেও বার্টির বিরুদ্ধে কোর্টে নামতে না পারার আফসোস যাচ্ছে না প্রাক্তন এক নম্বরের। সেরেনা বলেন, বিশ্বের একনম্বর তারকার বিরুদ্ধে নিজেকে পরখ করে নেওয়ার সুযোগ ছিল। তা হাতছাড়া হল। তবে বার্টিকে উদীয়মান তারকা হিসেবে দেখছেন ২৩ বারের গ্র্যান্ড স্ল্যামজয়ী।

সেরেনার কথায়, নতুন প্রজন্মের প্লেয়ারদের মধ্যে অধিকাংশের খেলার স্টাইলে বৈচিত্র্য রয়েছে। খেলার মানকে তারা অন্য পর্যায়ে নিয়ে গিয়েছে। তাঁদের মধ্যে অ্যাশ (বার্টি) অন্যতম। তবে টেনিসের যে কোনও পর্যায়ে বার্টি সহ নতুন প্রজন্মের চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হতে তিনি তৈরি বলে জানিয়েছেন তিনি। সেই লড়াইয়ে অনুপ্রেরণা যে ৪৩ বছরের এনএফএল তারকা টম ব্র্যাডি, জানাতে ভোলেননি সেরেনা।