সেরামে অগ্নিকাণ্ডে এক হাজার কোটি টাকারও বেশি সম্পত্তির ক্ষতি: আদর পুনাওয়ালা

238

নয়াদিল্লি: অগ্নিকাণ্ডে সেরাম ইনস্টিটিউটের এক হাজার কোটি টাকারও বেশি সম্পত্তির ক্ষতি হয়েছে। শুক্রবার একথা জানালেন সেরাম ইনস্টিটিউটের কর্তা আদর পুনাওয়ালা। তিনি জানান, ‘অগ্নিকাণ্ডে ঘটনায় কোম্পানির এক হাজার কোটি টাকারও বেশি ক্ষতি হয়েছে। অগ্নিকাণ্ডের ফলে প্রশ্ন উঠছিল করোনা টিকা কোভিশিল্ড উৎপাদনে এর কোনও প্রভাব পড়বে কিনা। দেশবাসীকে আশ্বস্ত তাঁর মন্তব্য, দুর্ঘটনার কোনও প্রভাব টিকা উৎপাদনে পড়বে না। তিনি বলেন, ‘আমরা ভাগ্যবান যেখানে আগুন লেগেছিল সেখানে ভ্যাকসিন মজুত করা ছিল না।’

বৃহস্পতিবার সেরাম ইনস্টিটিউটের নির্মীয়মান প্রশাসনিক ভবনে আগুন লাগে। মুহূর্তেই আগুন ছড়িয়ে পড়ে। অগ্নিকাণ্ডে মৃত্যু হয় ৫ শ্রমিকের। দীর্ঘক্ষণের প্রচেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে। এদিকে অগ্নিকাণ্ডের জেরে আতঙ্কের সৃষ্টি হয়। কারণ এখানেই তৈরি হচ্ছে কোভিশিল্ড ভ্যাকসিন, যা এখন দেশবাসীর কাছে বেঁচে থাকার অক্সিজেনের সমান। আর সেই ভ্যাকসিনের কারখানাতেই আগুন লেগে যাওয়ায় দুশ্চিন্তা ছড়িয়ে পড়ে। তবে যে জায়গায় ভ্যাকসিন তৈরি হচ্ছে আগুন সেখানে পৌঁছোতে পারেনি। সংস্থার তরফে জানানো হয়, ভ্যাকসিন সম্পূর্ণ নিরাপদ রয়েছে। বর্তমানে সেরাম ৫০ থেকে ৬০ মিলিয়ন টিকা উৎপাদন করছে। এদিকে করোনা টিকা উৎপাদনে ক্ষতি না হলেও বিসিজি এবং রোটা ভ্যাকসিন উৎপাদনের ইউনিটটি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। রাসায়নিক থেকেই এই আগুন ছড়িয়েছে বলে প্রাধমিকভাবে মনে করা হচ্ছে। যদিও এই বিষয়ে মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরে জানিয়েছেন, অগ্নিকাণ্ডের তদন্ত চলছে। রিপোর্ট হাতে এলেই এই বিষয়ে কোনও মন্তব্য করা যাবে।

- Advertisement -