শিলিগুড়ি, ২৯ এপ্রিলঃ দার্জিলিং বিধানসভার উপনির্বাচনে জোড় ধাক্কা খেলেন বিনয় তামাং। তৃণমূল কংগ্রেস সমর্থিক নির্দল প্রার্থী হিসাবে মনোনয়ন জমা দিয়েছেন দার্জিলিংয়ের এই হেভিওয়েট মোর্চা নেতা। কিন্তু সেই তৃণমূলেরই নেত্রী সারদা সুব্বা সোমবার নির্দল প্রার্থী হিসাবে নিজের মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। এই ঘটনায় পাহাড়ের রাজনৈতিক মহলে তীব্র গুঞ্জন শুরু হয়েছে। সারদাদেবী মনোনয়ন জমা দেওয়ার পর বলেন, ‘তৃণমূল সমর্থিক মোর্চা প্রার্থী পছন্দ না হওয়ায় আমি নিজেই মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছি।’

এদিকে, এই ঘটনায় ক্ষুব্ধ মোর্চার বিনয় তামাং শিবিরও। ইতিমধ্যেই তারাও কলকাতায় তৃণমূল নেতৃত্বের কাছে এব্যাপারে অভিযোগ জানিয়েছেন বলে জানা গিয়েছে। বিষয়টি নিয়ে তৃণমূল কংগ্রেসের পার্বত্য শাখার সভাপতি লালবাহাদুর রাই বলেন, ‘দার্জিলিং বিধানসভার উপনির্বাচনে আমাদের দল বিনয় তামাংকে সমর্থন করেছে। সেখানে দলেরই একজন নেত্রী এভাবে দলীয় সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে গিয়ে কেন প্রার্থী হলেন তা বুঝতে পারছি না। এটা মেনে নেওয়া হবে না। আমরা বিষয়টি দলের রাজ্য নেতৃত্বকে জানাচ্ছি। সারদাদেবীকে কারণ দর্শানোর নোটিশ করা হচ্ছে।’

প্রসঙ্গত, আগামী ১৯ মে দার্জিলিং বিধানসভার উপনির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। আজই ছিল মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার শেষ দিন। সব মিলিয়ে এই আসনে ১০ জন মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন বলে জেলা নির্বাচন দপ্তর সূত্রে জানা গিয়েছে।