দেবতা জ্ঞানে কেউটে প্রজাতির ঝাঁকলাই সাপের পূজো

82

বর্ধমান: প্রথা মেনে ধূমধাম করে বিষধর কেউটে প্রজাতির ঝাঁকলাই সাপের পূজো হল পূর্ব বর্ধমানের ভাতার ও মঙ্গলকোটের সাতটি গ্রামের বাসিন্দাদের উদ্যোগে। কেউ কেউ আবার ঝঙ্কেশরীও বলে থাকেন। প্রতি বছর আষাঢ় মাসের শুক্লা প্রতিপদ তিথিতে ঝাঁকলাই সাপের পূজো হয়। যা ঝাঁকলাই পূজো নামে প্রচলিত গ্রামীণ এলাকায়।

ঝাঁকলাই নিয়ে গ্রামবাসীদের ধর্মীয় বিশ্বাস যাই হোক না কেন বিজ্ঞানমঞ্চের তরফে অবশ্য বিষয়টিকে অন্যভাবে দেখছে।পশ্চিমবঙ্গ বিজ্ঞানমঞ্চের বর্ধমান জেলা কার্যকরী সভাপতি চন্দ্রনাথ বন্দোপাধ্যায় বলেন, ‘সাপ এমনিতেই ঠাণ্ডা রক্তের প্রাণী। কোনও কারণ ছাড়া সাপ কামড়ায় না। তাছাড়া ধর্মীয় রীতিনীতির কারণে এখানকার মানুষেরা সাপকে বিরক্ত করেন না। স্বভাবতই উভয়ের মধ্যে সহাবস্থান তৈরি হয়েছে। দীর্ঘদিনের সহাবস্থানের ফলে গ্রামগুলিতে সাপের কামড়ের ঘটনা খুবই কম।’

- Advertisement -