সিদ্ধান্ত বদল, আরও একদিন হাসপাতালে থাকতে চান সৌরভ

188

কলকাতা: বুধবার বাড়ি ফিরছেন না সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। আরও একদিন হাসপাতালে থাকতে চান তিনি। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে নিজেই একথা জানান তিনি।

বুধবারই হাসপাতাল থেকে ছাড়া পাওয়ার কথা ছিল মহারাজোর। সেই মতো হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ সমস্ত ব্যবস্থাও সেরে ফেলেন। তবে একেবারে শেষ মুহূর্তে বাড়ি যাওয়ার সিদ্ধান্ত বদল করেন তিনি। চিকিৎসক সপ্তর্ষি বাসু এবং হাসপাতালের সিইও রুপালী বসু সৌরভের এই সিদ্ধান্ত বদলের কথা জানান। এদিকে মহারাজের ছাড়া পাওয়ার খবরে এদিন সকাল থেকেই হাসপাতালের বাইরে সৌরভ ভক্তদের ভিড় উপচে পড়ে। যদিও চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, অন্য কোনও কারণ নেই। শারীরিকভাবে একেবারেই সুস্থ সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। তিনি নিজেই আরও একদিন থেকে বিশ্রাম নিতে চান। এটি সম্পূর্ণ তাঁর ব্যক্তিগত সিদ্ধান্ত।

- Advertisement -

প্রসঙ্গত, মঙ্গলবারই সৌরভকে দেখতে কলকাতায় আসেন হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ দেবী শেঠি। সৌরভের মেডিকেল রেকর্ড খতিয়ে দেখে দেবী শেঠি জানান, এখন সম্পূর্ণ বিপন্মুক্ত রয়েছেন তিনি। সৌরভকে দেখে আসার পর দেবী শেঠি সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে বলেন, ‘সৌরভের হৃদযন্ত্রের কোনও ক্ষতি হয়নি। ২০ বছরের যুবকের মতোই তাঁর হৃদযন্ত্র রয়েছে। পুরোপুরি সুস্থ রয়েছেন তিনি। সৌরভের জীবনযাপনের ধরনেও কোনও পরিবর্তন আসবে না। এমনকি সৌরভ ম্যারাথনে দৌড়োতে পারবেন। বিমান চালানোর ধকলও নিতে পারবেন।’

তিনি আরও বলেন, ‘সৌরভের মতো একজন প্রাক্তন খেলোয়াড় মাত্র ৪৮ বছরেই হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ায় হৃদরোগের উপর বাড়তি নজর দিচ্ছেন সারা বিশ্বের মানুষ। সবাই ভাবছেন যে সৌরভের মতো একজন প্রাক্তন খেলোয়াড়ের কিভাবে মাত্র ৪৮ বছরেই হৃদরোগ হতে পারে। কিন্তু ভারতের মতো দেশে এটাই বাস্তব ছবি। ভারতীয়রা যে জীবনযাপনে অভ্যস্ত, তাতে এটা সাধারণ বিষয়। কোনও মানুষ কতটা ফিট, কতটা শক্তিশালী, তার উপর নির্ভর করে না।’ এদিন বাড়ি ফিরে যাওয়ার কথা ছিল তাঁর। তবে বাড়ি ফিরে গেলেও এখন সৌরভকে সম্পূর্ণ বিশ্রামেই থাকতে হবে। বাইরে খুব একটা বেরোনো চলবে না। তবে বাড়ি থেকেই কাজ করতে বাধা নেই বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।