ম্যাচের আগে টিকিট নিয়ে হাহাকার ইডেনে

কলকাতা : ক্রিকেট ফিরল ইডেনে। ফিরল অতীতের আবেগও। যার প্রাণ প্রতিষ্ঠা হল রোহিত শর্মার ব্যাটে। আর সেই প্রত্যাবর্তনের আগেই সংবাদ শিরোনামে ক্রিকেটের নন্দনকানন। সৌজন্যে টিকিটের কালোবাজারি।

গত কয়েকদিন ধরেই ইডেন গার্ডেন্স ও সংলগ্ন ময়দান এলাকায় টিকিটের কালোবাজারি শুরু হয়েছিল প্রবলভাবে। ম্যাচের টিকিটের চাহিদা ছিল তুঙ্গে। রবিবার কলকাতা পুলিশের জালে ধরা পড়েছে মোট ১১ জন অবৈধ টিকিট বিক্রেতা। জানা গিয়েছে, কম্লিমেন্টারি ও প্রাইস টিকিট মিলিয়ে কয়েকশো টিকিট বাজেয়াপ্ত হয়েছে তাদের থেকে। কলকাতা পুলিশের এক আধিকারিক জানিয়েছেন, ভারত বনাম নিউজিল্যান্ড টি২০ ম্যাচকে কেন্দ্র করে ইডেন গার্ডেন্স ও আশপাশের এলাকায় টিকিটের কালোবাজারি চলছিল। আমরা মোট ১১ জনকে গ্রেপ্তার করেছি আজ। ধৃতদের থেকে শখানেক টিকিট বাজেয়াপ্ত হয়েছে।

- Advertisement -

২০১৯ সালে শেষবার ইডেনে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের আসর বসেছিল। মাঝে করোনা অতিমারির কারণে স্তব্ধ হয়ে গিয়েছিল সবই। সেই স্তব্ধতা ভেঙে আজ বিকেল থেকেই মানুষের ঢল মধ্য কলকাতার ধর্মতলা এলাকায়। ক্রিকেটপ্রেমীদের উৎসাহ ছিল চোখে পড়ার মতো। অতীতের মতোই হাতে তেরঙা নিয়ে টিম ইন্ডিয়ার জার্সি গায়ে হাজারও মানুষ। বেশিরভাগেরই হাতে ইডেনের মহার্ঘ টিকিট। বিকেলের দিকে অসম, ঝাড়খণ্ড থেকে ব্যক্তিগত কাজে কলকাতায় আসা কিছু মানুষের দেখা মিলল। হন্যে হয়ে টিকিট খুঁজছিলেন তাঁরা। শেষ পর্যন্ত টিকিট পাননি।

মহার্ঘ টিকিট নিয়ে যাঁরা শেষ পর‌্যন্ত ক্রিকেটের নন্দনকাননে প্রবেশ করতে পেরেছিলেন, সেই ৪৭ হাজার মানুষ রোহিত শর্মা-ঈশান কিষান জুটির ব্যাটিং দেখার পাশে আরও একটা বিরল দৃশ্যের সাক্ষী থেকে গেলেন চিরকালের জন্য। নিজের হোম গ্রাউন্ডে এই প্রথমবার ইডেন বেল বাজিয়ে ম্যাচ শুরুর ঘোষণা করলেন বিসিসিআই সভাপতি সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। ম্যাচের ফল যাই হোক না কেন, মহারাজের ঘণ্টা বাজানোর চওড়া হাসি ইডেনের হল অফ ফেমে চিরকালীন হয়ে গেল।