চণ্ডীগড়, ১৫ মেঃ ‘মোদিজি কে পকোড়ে’ বেচার অপরাধে গ্রেফতার হলেন ১২ জন শিক্ষার্থী। মঙ্গলবার চণ্ডীগড়ে বিজেপি প্রার্থী কিরণ খেরের হয়ে প্রচারে গিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। প্রধানমন্ত্রীর সভাস্থলের পাশেই স্নাতকের কালো পোশাক পরে পকোড়ার দোকান দিয়ে ছিলেন কয়েকজন শিক্ষার্থী। পকোড়ার নাম ‘মোদিজি কে পকোড়ে’। বেকারত্বের বিরুদ্ধে এই অভিনব প্রতিবাদের জন্য গ্রেফতার করা হয়েছে ১২ জন শিক্ষার্থীকে।

চণ্ডীগড় সেক্টর ৩৪-এর স্টেশন হাউস অফিসার বলদেব কুমার বলেছেন, ‘আমরা ১০-১২ জন শিক্ষার্থীকে হেফাজতে নিয়েছি। যদিও সমাবেশের পর তাঁদের ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।’

এ দিনের প্রতিবাদে ইঞ্জিনিয়ার, B.A, LLB ডিগ্রীধারী শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন। প্রতিবাদে সামিল এক মহিলা বলেন, ‘পকোড়া যোজনায় নয়া কর্মসংস্থান করার জন্য আমরা মোদিজিকে স্বাগত জানাতে এসেছি। মোদিজির সভায় পকোড়া বেচে আমরা তাঁকে জানাতে চাই যে একজন শিক্ষিতের জন্য পকোড়া বিক্রি করা কতটা মহান কাজ।’

প্রসঙ্গত, গত বছর জানুয়ারিতে একটি সাক্ষাত্‍‌কারে প্রধানমন্ত্রী বলেছিলেন, ‘যাঁরা পকোড়া বিক্রি করে দিনে ২০০ টাকা আয় করছেন, তাঁদের বেকার বলা যায় না।’ উলটো দিকে, ২০১৯-এ প্রকাশিত একটি রিপোর্টে দেখা গিয়েছে, ৬.১% হারে দেশে বেকারত্ব বেড়েছে। যা ১৯৭০ সালের পর থেকে সর্বাধিক।