কর্তৃপক্ষের চাপে ঠিকাকর্মীর মৃত্যুর অভিযোগ উঠল কোচবিহার মেডিকেলে

278

কোচবিহার, ৬ নভেম্বর: কর্তৃপক্ষের চাপে মানসিকভাবে ভেঙে পড়ে অসুস্থ হওয়ার পর মৃত্যুর অভিযোগ উঠল কোচবিহার সরকারি মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে। ঘটনাকে কেন্দ্র করে বৃহস্পতিবার উত্তেজনা ছড়ায় সেখানে। আন্দোলনে নামেন হাসপাতালে অস্থায়ী কর্মীরা। জানা গিয়েছে, বুধবার হাসপাতালের এক অস্থায়ী কর্মী অমিত দাস মারা যান। তাঁর মৃত্যুর জন্য হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ দায়ি বলে অভিযোগ সহকর্মীদের। হাসপাতালের নিরাপত্তারক্ষী পীযূষকান্তি শীল বলেন, ‘অস্থায়ী ঠিকাকর্মীদের কর্তৃপক্ষ কাজের জন্য অতিরিক্ত চাপ দিত। মাঝেমধ্যেই ডিউটি করলেও অনুপস্থিত হিসেবে উল্লেখ করা হত। প্রতিবাদ করলে গালিগালাজ করা হয়। এই অবস্থায় অস্থায়ী ঠিকা কর্মীরা মানসিকভাবে ভেঙে পড়েছে। চাপ সহ্য করতে না পেরেই অসুস্থ হয়ে মারা যান অমিত দাস।’ আরেক ঠিকাকর্মী মহেশ দাস বলেন, ‘ইচ্ছে করেই ঠিকা কর্মীদের উপর বেশি করে চাপ দেওয়া হত। অমিতবাবুর মৃত্যুর জন্য হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ দায়ি। ঘটনার প্রতিবাদে আমরা আন্দোলনে নেমেছি।’ একাধিকবার যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও ফোন না তোলায় এবিষয়ে এমএসভিপি ডা: রাজীব প্রাসাদের কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি।