অযত্নে হারিয়ে যাচ্ছে বটেশ্বর মন্দির 

483

ময়নাগুড়ি : অবহেলায় নষ্ট হতে চলেছে ময়নাগুড়ি বটেশ্বর মন্দির। মন্দিরের চত্বর ঝোপ-জঙ্গলে ভরে গিয়েছে। সন্ধ্যার পর মন্দির চত্বর চলে যায় সমাজবিরোধীদের দখলে। মন্দিরটিকে অবিলম্বে সংস্কারের দাবি উঠেছে বিভিন্ন মহলে।

ময়নাগুড়ি সার্ক রোড লাগোয়া বটেশ্বর মন্দির। নানা ঐতিহাসিক নিদর্শন-সমৃদ্ধ এই মন্দির কবে তৈরি হয়েছিল, তা নিয়ে বিভিন্ন মত প্রচলিত রয়েছে। ঐতিহাসিকদের একাংশের মতে এই মন্দির পাল রাজার আমলের। আবার অন্য অংশের মতে এই মন্দির গঠন হয়েছে গুপ্ত আমলে। তবে দীর্ঘদিন থেকে সংস্কারের অভাবে মন্দিরটি প্রায় ধ্বংসস্তূপে পরিণত হয়েছে। মন্দিরের বিভিন্ন অংশ ছড়িয়ে ছিটিয়ে রয়েছে চার দিকে। জল্পেশ মন্দির যাওয়ার আগে এই মন্দির থাকায় বটেশ্বর মন্দিরে আগে স্থানীয় এবং বহিরাগত পুণ্যার্থী ও পর্যটকদের ভিড় লেগেই থাকত। কিন্তু মন্দিরটি সংস্কারের ব্যাপারে প্রশাসন তেমন কোনো উদ্যোগ গ্রহণ না করায় পর্যটকরাও মুখ ফিরিয়েছেন এই মন্দির থেকে।

- Advertisement -

এখন গোটা মন্দির চত্ত্বর জঙ্গলে ভরে থাকায় সাপের উপদ্রব রয়েছে। অভিযোগ, সন্ধ্যার পর থেকেই মন্দির চত্বরে জুয়া ও মদের আসর বসে। স্থানীয় বাসিন্দারা জানান, বটেশ্বর মন্দিরের ভিতর প্রচুর পাথর রয়েছে। সেই পাথরগুলিতে খোদাই করা নানান কাজ রয়েছে। সেগুলি নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। তাই প্রশাসনের থেকে উদ্যোগ নিয়ে যদি মন্দিরটি সংস্কার করা হয় তবে জল্পেশ মন্দিরের পাশাপাশি আলাদাভাবে একটি পর্যটনের কেন্দ্র গড়ে উঠবে এই স্থানে।

ময়নাগুড়ি পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি শিবম রায় বসুনিয়া জানান, মন্দিরটি সংস্কারের ব্যাপারে পরিকল্পনা রয়েছে। খুব তাড়াতাড়ি আলোচনার মাধ্যমে পদক্ষেপ করা হবে।

তথ্য ও ছবি : অভিরূপ দে