পুরাতন মালদা, ১৮ জুলাইঃ টোটো চালকদের অবরোধ, বিক্ষোভকে কেন্দ্র করে বৃহস্পতিবার রণক্ষেত্র চেহারা নিল পুরাতন মালদার সাহাপুর সেতুমোড়। বিক্ষোভ সামাল দিতে গেলে পুলিশের সঙ্গে টোটো চালকদের খন্ডযুদ্ধ বাধে। পুলিশকে লক্ষ্য করে ইঁটবৃষ্টির অভিযোগ ওঠে বিক্ষুব্ধ টোটো চালকদের বিরুদ্ধে। আহত হন পুলিশের এক এসআই ও দুই সিভিক ভলান্টিয়ার। আহত হন মালদা থানার আইসিও। আহত অবস্থায় তাঁদের মালদা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে ভরতি করা হয়। ভাঙচুর চলে পুলিশের ভ্যানেও। বিক্ষোভ সামাল দিতে গিয়ে র‍্যাফ নামাতে হয় পুলিশকে। লাঠিচার্জ করার পাশাপাশি ফাটানো হয় টিয়ার গ্যাসের সেল। খন্ডযুদ্ধে ক্ষতিগ্রস্ত হয় বেশ কিছু টোটো। এই ঘটনায় এখনও পর্যন্ত দু’জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

প্রসঙ্গত, শহর লাগোয়া গ্রামাঞ্চলের টোটোকে ঢুকতে দেওয়া যাবে না ইংরেজবাজার শহরে। প্রশাসনের এই সিদ্ধান্তের জেরে গত ৫ জুলাই থেকে শুরু হয়েছিল টোটো চালকদের বিক্ষোভ। এরপর দফায় দফায়  প্রশাসনিক ও সর্বদলীয় বৈঠক হলেও মেলেনি কোন রফাসূত্র। ওই ইশ্যুতে বারবার করে রাস্তা অবরোধ ও বিক্ষোভ শামিল হয়েছেন পুরাতন মালদার গ্রামাঞ্চলের টোটো চালকরা। এর আগেও দফায় দফায় বহুবার সেতু মোড়ে অবরোধ ও বিক্ষোভ দেখান তারা। সে সময় পুলিশ গিয়ে বিক্ষোভ তুলে দেয়। তবে এদিন টোটো চালকদের বিক্ষোভ চরম পর্যায়ে পৌঁছায়। এদিন সকাল থেকেই সেতু মোড় অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখাতে থাকেন টোটো চালকেরা। মালদা বুলবুলচন্ডী রাজ্য সড়কে ডিস্কো মোড়, কাদিরপুর ও রায়পুরেও পথ অবরোধ করা হয়। অবরোধের জেরে ওই রুটে ব্যাপক যানজটের সৃষ্টি হয়। স্কুল, কলেজ ও অফিসে কর্মীদের হেঁটে গন্তব্যস্থলে যেতে হয়। সেতু মোড়ে অবরোধে আটকে পড়ে বিভিন্ন স্কুল বাসগুলিও। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছায় মালদা ও ইংরেজবাজার থানার পুলিশ। দীর্ঘক্ষণ অবরোধ চলার পর পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।