তৃণমূলের ঝাণ্ডা পোড়ানোকে ঘিরে উত্তেজনা উত্তর ধূপঝোরা বাজারে 

150

চালসা: তৃণমূলের দলীয় ঝাণ্ডা পোড়ানোকে কেন্দ্র করে চাপা উত্তেজনা তৈরি হল। ঝাণ্ডার পাশাপাশি এলাকার জনস্বাস্থ্য ও কারিগরি দপ্তরের নির্মীয়মাণ ট্যাপ কলও ভেঙে দেওয়া হয়। একটি দোকানেও আগুন লাগানোর চেষ্টা করা হয়। ঘটনাটি মেটেলি ব্লকের উত্তর ধূপঝোরা বাজারের। রবিবার সকালে স্থানীয় জনগন দেখতে পায় যে বাজারে লাগানো বেশ কয়েকটি তৃণমূলের ঝাণ্ডায় আগুন লাগানো হয়েছে। বাজার সংলগ্ন পিএইচইর ট্যাপ কলও ভেঙে দেওয়া হয়। ঘটনার খবর চাউর হতেই বিভিন্ন এলাকা থেকে তৃণমূলের নেতা কর্মীরা আসে উত্তর ধূপঝোরা বাজারে। আসেন মাটিয়ালি বাতাবাড়ি-২ নম্বর অঞ্চল সভাপতি বাপন রায়, তৃণমূল যুব কংগ্রেসের জেলা সহ সভাপতি হোসেন হাবিবুল হাসান, তৃণমূল কিষাণ খেত মজদুরের ব্লক সভাপতি সোনা সরকার।

মেটেলি থানার পুলিশ এসে পোড়ানো ঝাণ্ডা খুলে নেয়। পরে আসেন তৃণমূলের মেটেলি ব্লক সভাপতি আশিস কুন্ডু, আইএনটিটিইউসি’র জেলা সভাপতি জোসেফ মুন্ডা প্রমুখ। ঘটনার প্রতিবাদে এদিন সকালে তৃণমূলের তরফে উত্তর ধূপঝোরা বাজারে প্রতিবাদ মিছিল ও সভা করা হয়। তৃণমূলের মেটেলি ব্লক সভাপতি আশিস কুন্ডু বলেন, বেছে বেছে তৃণমূলের ঝাণ্ডায় আগুন লাগানো হয়েছে। সরকারের উন্নয়নমূলক জল প্রকল্পের কাজের ক্ষতি করা হয়েছে। আমাদের ধারণ বিরোধী দলের দুষ্কৃতীরা এই কাজ করেছে। রাজনৈতিক উদ্দ্যেশ্য প্রণোদিতভাবেই এই কাজ করা হয়েছে। অবিলম্বে দুষ্কৃতীদের চিহ্নিত করে তাদের কঠোর শাস্তির দাবি করেছেন তিনি। মেটেলি থানা সূত্রে জানা গিয়েছে, ঘটনার তদন্ত করা হচ্ছে।

- Advertisement -