‘পুলিশ তৃণমূলের’ সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে পথ অবরোধ বিজেপির

129

বক্সিরহাট: পুলিশ ও তৃণমূলের সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানিয়ে পথ অবরোধ করল বিজেপি। শনিবার বক্সিরহাট থানায় তুরকানির কুঠিতে রাজ্য সড়কে ওই অবরোধ হয়। প্রায় দেড় ঘণ্টা ধরে অবরোধ চলার পর পুলিশের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে। এদিনের অবরোধে নেতৃত্ব দেন বিজেপির মহিলা মোর্চার জেলা সভানেত্রী মমতা বর্মন, নন্দিতা দাস, ধীরাজ বর্মন, মনোরঞ্জন বাড়িয়া সহ অন্যান্যরা। নন্দিতা দাস জানান, গত সোমবার রাতে তৃণমূলের লোকজন বিজেপি পার্টি অফিসে আক্রমণ চালায়। তাদের কর্মী-সমর্থকদের মারধর করে। ঘটনার পর একদিকে যেমন তৃণমূলের লোকেরা বিজেপি কর্মীদের ওপর সন্ত্রাস চালাচ্ছে অপরদিকে পুলিশও তৃণমূলের দল দাস হয়ে উলটে বিজেপি কর্মীদের নামেই মিথ্যা অভিযোগ দিয়ে হয়রানি করছে। থানায় অভিযোগ করতে গেলেও তৃণমূলের বিরুদ্ধে কোনও অভিযোগ নিচ্ছে না। ওই ঘটনায় অভিযুক্ত তৃণমূলের দুষ্কৃতীদের অবিলম্বে গ্রেপ্তার করতে হবে। তৃণমূল দপ্তর থেকে মজুত করা অবৈধ অস্ত্রশস্ত্র উদ্ধার করে বাজেয়াপ্ত করতে হবে। সেই সঙ্গে পুলিশকেও নিরপেক্ষ ভূমিকা পালন করতে হবে। এইসব দাবির ভিত্তিতেই এদিন তারা পথ অবরোধ করেন।

যুব মোর্চার জেলা কমিটির সদস্য ধীরাজ বর্মন জানান, পুলিশ প্রশাসন ঘটনাস্থলে এসে তাদের দাবিগুলি খতিয়ে দেখে ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দেয়। সেই আশ্বাসের ভিত্তিতে তারা প্রাথমিকভাবে এদিন অবরোধ তুলে নিলেন। তবে অভিযুক্তদের গ্রেপ্তার করা না হলে আরও বৃহত্তর আন্দোলনে নামবেন তাঁরা। তবে, পুলিশের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ নিয়ে পুলিশ কোনও মন্তব্য করতে চায়নি।

- Advertisement -

তৃণমূলের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ ও অবরোধ নিয়ে তৃণমূলের তুফানগঞ্জ ২ ব্লক সাধারণ সম্পাদক সুরেশ বর্মন জানান, তাদের বিরুদ্ধে তোলা অভিযোগ সম্পূর্ণ মিথ্যা ও ভিত্তিহীন। বিজেপির কয়েকজন নেতা প্রচারে আসার জন্য এইসব নাটক করে মানুষকে বিভ্রান্ত করছে।