খুদে শিল্পী অভ্রদীপের তৈরি দুর্গা প্রতিমা নজর কেড়েছে সকলের

0
282
- Advertisement -

রায়গঞ্জ: রায়গঞ্জ করোনেশন হাই স্কুলের নবম শ্রেণির ছাত্র অভ্রদীপ সাহা। বাড়ি রায়গঞ্জ শহরের পশ্চিম বীরনগর এলাকায়। সে নিজের চেষ্টায় ২ ফুট উচ্চতার একচালা সাবেকি ডাকের সাজের প্রতিমা তৈরি করে সকলের নজর কেড়েছে ইতিমধ্যে। প্রায় এক মাস ধরে কাঠ, পেরেক, মাটি, পাট, সোলা, রং-তুলি, জরি, কাগজ ও কাডবোর্ড দিয়ে দুর্গার মৃন্ময়ী রুপ ফুটিয়ে তুলেছে অভ্রদীপ। এক্ষেত্রে তাকে উৎসাহ দিয়েছে তাঁর বন্ধুপ্রতীম সূর্যাশিস, মৃন্ময় ও দিদি বৈশালী। সূর্য্যাশিস এবং মৃন্ময় একাদশ ও সপ্তম শ্রেণিতে পড়লেও প্রতিমা তৈরিতে তাঁরা তাকে বিভিন্নভাবে উৎসাহ দিয়েছে।

অভ্রদীপের মা পাপড়ি সাহা জানান, ছোটবেলা থেকেই সে রং তুলি কাগজ কার্ডবোর্ড দিয়ে দুর্গা প্রতিমা তৈরি করে। পড়াশোনা ও’ খেলাধুলার পাশে প্রতিমা তৈরি করতে তাঁর বেশ ভালো লাগেl বিগত তিন বছর ধরে অভ্রদীপ মাটি দিয়ে দুর্গামূর্তি তৈরি করছে, এই বছর তার ব্যতিক্রম ঘটেনিl করোনা আবহে ইউটিউব ও অনলাইন ক্লাসের সঙ্গে সে তৈরি করে ফেলেছে ২ ফুট উচ্চতার ছোট্ট সাবেকি ডাকের সাজের প্রতিমা। তিনি আরও বলেন, ‘প্রতিমা তৈরির ক্ষেত্রে সর্বদায় তাকে উৎসাহ দিয়েছি এবং সাহায্য করেছি ও যদি চায় ভবিষ্যতে এই শিল্পকে নিয়ে পড়াশোনা করবে।‘ অন্যদিকে, বাবা রুপম সাহা ছেলের জন্য যথেষ্ট গর্বিত। তিনি ছেলেকে প্রতিমা তৈরিতে উৎসাহ জুগিয়েছেন।

পাশাপাশি, এদিন অভ্রদীপ বলেন, ‘ছোটো থেকেই ছবি আঁকার পাশাপাশি কাডবোর্ড দিয়ে বিভিন্ন জিনিস তৈরি করতাম। গত দুবছর ধরে দুর্গা প্রতিমা তৈরি করছি। তবে এবছর লকডাউনের জন্য স্কুল বন্ধ থাকায় কিছুটা বেশি সময় পেয়েছি। তাই এক মাসের মধ্যে প্রতিমার কাজ শেষ করে ফেলেছি। মা-বাবা ও বন্ধুরা আমাকে খুব উৎসাহ দিয়েছে।ইচ্ছে আছে আগামী বছর আরও বড় প্রতিমা তৈরি করব। পাশাপাশি বাড়ির লক্ষ্মী, সরস্বতী, বিশ্বকর্মা প্রতিমা বানানোর ইচ্ছে আছে। তবে অভ্র তাঁর তৈরি প্রতিমার পুজো নিজে করে না, স্থানীয় চৈতালি ক্লাবের পুজো মন্ডপে বড় প্রতিমার পাশে তাঁর তৈরি প্রতিমা পুজিত হবে।‘

- Advertisement -