বিয়ের চারদিনের মাথায় উদ্ধার জামাইয়ের ঝুলন্ত দেহ

717

বর্ধমান: বিয়ের চারদিনের মাথায় গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় উদ্ধার হল জামাইয়ের মৃতদেহ। মৃতের নাম পবন দাস(৩৭)। এই ঘটনায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়েছে পূর্ব বর্ধমানের ভাতার থানার বড়বেলুন গ্রামে। শুক্রবার বর্ধমান হাসপাতাল পুলিশ মর্গে মৃত ব্যক্তির দেহের ময়নাতদন্ত হয়। যুবকের মৃত্যুর কারণ নিয়ে ধন্দে রয়েছে পুলিশ ও পরিবার। অস্বাভাবিক মৃত্যুর মামলা রুজু করে পুলিশ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, ভাতারের বড়বেলুন গ্রামে বাড়ি পবন দাসের। সে পেশায় লরি চালক। বছর দশেক আগে পবন দাসের একবার বিয়ে হয়েছিল। কিন্তু স্ত্রী তাঁকে ছেড়ে চলে যায়। দিন চারেক আগে মঙ্গলকোটের মাঝিগ্রাম নিবাসী এক তরুণীর সঙ্গে তাঁর দ্বিতীয় বিয়ে হয়। বৃহস্পতিবার বড়বেলুন গ্রামের মাঠে থাকা একটি গাছে গলায় দড়ির ফাঁস লাগানো অবস্থায় পবনের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয়। এমনটা দেখেই স্থানীয় মানুষজন যুবকের পরিবারে খবর দেয়। পাশাপাশি ভাতার থানার পুলিশও খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌছোয়। পুলিশ মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠায়। কি কারণে যুবক এমন মর্মান্তিক ঘটনা ঘটালো সেই কারণ এখন হাতরে বেড়াচ্ছে পুলিশ ও পরিবার সদস্যরা।

- Advertisement -