ছাগলীয়া আন্তঃরাজ্য সীমানায় প্রশাসনিক নজরদারিতে চলছে পরিযায়ী শ্রমিকদের যাতায়াত

305

শিশির গুহ, তুফানগঞ্জ: অসম-বাংলা সীমান্তের ছাগলীয়া আন্তঃরাজ্য সীমানা দিয়ে প্রতিদিনই চলছে পরিযায়ী শ্রমিকদের যাতায়াত। পরিযায়ী শ্রমিকেরা যেমন ছাগলীয়ার আন্তঃরাজ্য সীমানা দিয়ে পশ্চিমবঙ্গ সহ ভারতের বিভিন্ন রাজ্য থেকে অসম সহ উত্তরপূর্বাঞ্চলের রাজ্যগুলোতে সড়ক পথে যাতায়াত করছেন। তেমনই অসম সহ উত্তর পূর্বাঞ্চলের অঙ্গরাজ্যগুলোর পরিযায়ী শ্রমিকেরা পশ্চিমবঙ্গ সহ ভারতের বাকি রাজ্যগুলোতে যাতায়াত করছেন। অসম-বাংলা সীমান্তের ছাগলিয়ায় অসম সরকারের পক্ষ থেকে যেমন এসএসবির মতো আধা সামরিক বাহিনীর জওয়ান সহ সে রাজ্যের বিভিন্ন ব্যাটেলিয়নের পুলিশ ও প্রশাসনিক আধিকারিকেরা ছাগলিয়ায় রয়েছেন। তেমনই এ রাজ্যের পুলিশ ও ৱ্যাপিড অ্যাকশন ফোর্স (ৱ্যাফ) নজরদারির জন্য রয়েছেন।

শনিবা ঘটনাস্থলে যান তুফানগঞ্জের মহকুমা পুলিশ আধিকারিক জ্যাম ইয়ং জিম্বা। পরিযায়ী শ্রমিকদের আন্তঃরাজ্য সীমানায় দুই রাজ্যের তরফে থার্মাল স্ক্রিনিং সহ স্বাস্থ্যপরীক্ষা, খাবার ও জল দেওয়া হচ্ছে। এরপর পরিযায়ী শ্রমিকদের পুলিশের পহরায় বাসে করে বাড়িতে পৌঁছে দেওয়া হচ্ছে। এদিকে কয়েকদিন ধরে শ্রমিকেরা দলে দলে ছাগলীয়ার আন্তঃরাজ্য সীমানা ধরে যাতায়াত করায়  শনিবার দুপুরে বক্সিরহাট অগ্নিনির্বাপক কেন্দ্রের দমকলকর্মীরা ছাগলীয়া আন্তঃরাজ্য সীমানায় বেটাডিন, ফিনাইল ও সোডিয়াম হাইপোক্লোরাইড মিশ্রিত জল দিয়ে জীবাণুমুক্তের কাজ করেন। এদিন কয়েকজন শ্রমিক অরুণাচল প্রদেশ থেকে ভোরে এসে পৌঁছালেও তাদের অনেক সময় পরে খাবার হিসেবে খিচুড়ি দেওয়া হয় বলে অভিযোগ। তবে ছাগলিয়ার মতো আন্তঃরাজ্য সীমানায় অসম ও বাংলা পুলিশের নজরদারি ও তৎপরতা ছিল চোখে পড়ার মত।

- Advertisement -