সেবকে দ্বিতীয় সেতুর দাবিতে আন্দোলন তীব্র

340

মালবাজার: সেবকে দ্বিতীয় সড়ক সেতু তৈরির দাবিতে আন্দোলন তীব্র আকার নিচ্ছে। শনিবার মাল শহর থেকে সেবকের করোনেশন সেতু পর্যন্ত ‘সেবক চলো’ বাইক র‍্যালি হয়। সেবকের দ্বিতীয় সেতু তৈরি দাবিতে আন্দোলনকারী সংস্থা ডুয়ার্স ফোরাম ফর সোশ্যাল রিফর্মসের তরফে আন্দোলন কর্মসূচি হয়। ফোরাম সম্পাদক চন্দন রায় বলেন, ‘আমরা সেবকে অবস্থান বিক্ষোভ কর্মসূচিও করেছি।‘

শনিবার ডুয়ার্স ফোরাম ফর সোশ্যাল রিফর্মসের বাইক র‍্যালিতে মালবাজার, ডামডিম, ওদলাবাড়ি, বাগড়াকোট, ওয়াশাবাড়ি, এলেনবাড়ি, গরুবাথান, চালসা, মেটেলি সহ বিভিন্ন এলাকার প্রতিনিধিরা শামিল হন। সকালে মাল শহরের সুভাষ মোড়ে ফোরামের সভাপতি দেবীপ্রসাদ আগরওয়াল, সম্পাদক চন্দন রায় নেতাজীর মূর্তিতে মাল্যদান করেন এরপর বাইক র‍্যালি মাল শহরের বিভিন্ন পথ পরিক্রমা করে। শহরের পথ পরিক্রমার পর বাইক র‍্যালিটি সেবকের করোনেশন সেতু পর্যন্ত যায়।

- Advertisement -

সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে ফোরাম সম্পাদক চন্দন রায় বলেন, ‘আমরা বিভিন্ন স্তরে বারংবার সেবকে দ্বিতীয় সড়ক সেতু তৈরির দাবি করেছি। ডুয়ার্স পাহাড় সহ বিস্তীর্ণ এলাকার বাসিন্দা স্বার্থেই সেবকে দ্বিতীয় সেতু তৈরি করা খুবই জরুরী। চন্দনের অভিযোগ কেন্দ্র এবং রাজ্য সরকার একে অপরের কোর্টে বল ঠেলছে। অথচ সেবকের দ্বিতীয় সড়ক সেতু তৈরির বিষয়ে কার্যকরী পদক্ষেপ নেওয়া হচ্ছে না। আমাদের দাবি দুই সরকার সমন্বয়ের মাধ্যমে কাজ করুক। বৃহত্তর লক্ষ্যে সেবকে দ্বিতীয় সড়ক সেতু তৈরি করা খুবই জরুরী।‘

চন্দনবাবু আরও বলেন, ‘সেবকে বর্তমান সড়ক সেতুর করোনেশন ১৯৩৭ সালে তৈরি। ২০১১ সালের ভূমিকম্পে ক্ষতিগ্রস্ত। স্তম্ভের নিচের দশা ভালো নয়। বর্তমানে দশ টনের বেশি ওজন যুক্ত যানবাহন চলাচলও বন্ধ। আমরা চাই করোনেশন সেতুটি সংরক্ষণ করা হোক। যাতায়াতের জন্য নতুন দ্বিতীয় সেতু তৈরি করা হোক।‘ ফোরামের বাইক র‍্যালি সেবকের করোনেশন সেতুতে পৌঁছনোর পর অবস্থান-বিক্ষোভও করা হয়েছে বলে ফোরামের পক্ষ থেকে চন্দন রায় জানিয়েছেন।