ভ্যাকসিনের সূঁচ শিশুর শরীরে, তড়িঘড়ি অস্ত্রোপচারে সুস্থ

229

রায়গঞ্জ: ইনজেকশনের সূঁচ ভেঙে শিশুর পায়ে ঢুকে যাওয়ায় গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়ল এক শিশু। ভ্যাকসিন দিতে গিয়ে এই বিপত্তির পর অস্ত্রোপচার করে সেই সূঁচ বের করা হয়। এই ঘটনায় স্বাস্থ্যকর্মীদের ভূমিকায় রীতিমতো ক্ষুব্ধ এলাকার বাসিন্দারা। সোমবার তাঁরা স্থানীয় স্বাস্থ্যকেন্দ্রে গিয়ে তীব্র বিক্ষোভে ফেটে পড়েন। বিক্ষোভের জেরে এলাকায় তীব্র উত্তেজনা সৃষ্টি হয়। ঘটনাস্থলে তৃণমূলের পঞ্চায়েত সদস্য এসে পরিস্থিতি সামাল দেন। যদিও যার বিরুদ্ধে অভিযোগ সেই স্বাস্থ্যকর্মী এদিন গরহাজির ছিলেন। তার সঙ্গে যোগাযোগ করা যায়নি।

রায়গঞ্জ ব্লকের বড়ুয়া গ্রাম পঞ্চায়েতের গোয়ালপাড়া উপস্বাস্থ্য কেন্দ্রে স্থানীয় বাসিন্দা রফিকুল আলম তার শিশুকে ভ্যাকসিন দেওয়া জন্য নিয়ে যান। ভ্যাকসিনেশনের পর থেকেই শিশুটির পা ধীরে ধীরে ফুলে উঠতে থাকে। শিশু রোগ বিশেষজ্ঞের কাছে নিয়ে গেলে চিকিৎসক সার্জনের কাছে নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেন। সেই মোতাবেক পরিবারের লোকেরা রায়গঞ্জ মেডিকেল কলেজের শল্য চিকিৎসক সঞ্জয় শেঠের কাছে নিয়ে গেলে তিনি অস্ত্রোপচার করার পরামর্শ দেন। রবিবার একটি বেসরকারি নার্সিংহোমে ভর্তি করে বাঁ পায়ের থেকে সূঁচ বের করার পাশাপাশি চামড়ার কিছুটা অংশ কেটে বাদ দিয়ে দেন চিকিৎসক। এই প্রসঙ্গে শল্যচিকিৎসক সঞ্জয় শেঠ জানিয়েছেন, আপাতত শিশুটি বিপদমুক্ত।‘

- Advertisement -

তবে নার্স জলি বসাক জানান, এটা আমাদের এখানে খুব বড় ঘটনা নয়। অনেকসময় শিশুর শরীরের কারণে এমন একটা দুটো ঘটনা ঘটেই থাকে। জেলা মুখ্য স্বাস্থ্য আধিকারিক কার্তিকচন্দ্র মণ্ডল জানান, অভিযোগ পেলে ওই স্বাস্থ্যকর্মীর বিরুদ্ধে পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে। তৃণমূলের পঞ্চায়েত সদস্য আজিমুল হক জানান, এই স্বাস্থ্য কেন্দ্রের বিরুদ্ধে দীর্ঘদিনের অভিযোগ। একাধিক শিশুকে জখম করেছেন ওই স্বাস্থ্যকর্মী। অবিলম্বে ওই স্বাস্থ্য কেন্দ্র থেকে তাকে বরখাস্ত করতে হবে। ক্ষতিগ্রস্ত শিশুর পরিবারকে ক্ষতিপূরণের দাবিও তোলের তিনি।