অন্তরায় আর্থিক প্রতিবন্ধিকতা, গণবিবাহের আসরে চারহাত এক হল ১৩ যুগলের

91

জটেশ্বর: অন্তরায় ছিল আর্থিক প্রতিবন্ধকতা। মনের মানুষের সঙ্গে ঘর বেঁধে ওঠা প্রায় আকাশ-কুসুম হয়ে দাঁড়িয়েছিল তাদের। তবে, ভালোবাসার কাছে হার মানল সব প্রতিবন্ধকতা। সাহায্য়ের হাত বাড়িয়ে এগিয়ে এল শ্রীহরি সেবা সৎসঙ্গ সমিতি। শেষ অবধি এক হল চারহাত।

তাঁরা ফালাকাটা ব্লকের বিভিন্ন চা মহল্লার বাসিন্দা। অর্থাভাবে বিয়ে সেরে ওঠা সম্ভব হচ্ছিল না তাদের। অবশেষে তারা যোগ দিলেন গণবিবাহের আসরে। সেখানেই নিয়ম মেনে সম্পন্ন হল বিয়ের অনুষ্ঠান। চারহাত এক হল ১৩ যুগলের। নবদম্পতিদের আশীর্বাদ করেন সংগঠনের কার্যকর্তাগন।

- Advertisement -

এই গণবিবাহের আসর বসেছিল ফালাকাটা ব্লকের দলগাও চা বাগানের ফুটবল মাঠে। উদ্যোক্তা শ্রীহরি সেবা সৎসঙ্গ সমিতি। জানা গিয়েছে, সাতদিনব্যাপী শ্রীমদ ভাগবত কথা সপ্তাহ ও জ্ঞান মহাযজ্ঞের আয়োজন করা হয়েছিল সমিতির তরফে। এদিন সেই অনুষ্ঠানের সমাপ্তি পর্বে আয়োজিত হয় গণবিবাহ। উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের প্রাক্তন সভাপতি পরমানন্দ শর্মা, রমেশ আগরওয়াল যুগ্ম সম্পাদক এবং সভাপতি সঞ্জয় জৈন।

দলগাও গ্রামপঞ্চায়েতের প্রধান আনন্দ খাড়িয়া বলেন, ‘গনবিবাহের মধ্য দিয়ে একাধিক যুবক-যুবতীর চারহাত এক হয়েছে৷ এটা খুবই ভালো উদ্যোগ। আমি চাই প্রতি বছর এই অনুষ্ঠান হোক।’