বিধায়কের ছবিতে ঘুষি, ক্ষমা চেয়ে কান ধরে উঠবস যুবকের

274

চোপড়া: দেওয়ালে সাঁটানো পোস্টারে থাকা বিধায়কের ছবিতে একের পর এক ঘুষি। আর সেই ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হতেই শোরগোল পড়ে যায় চোপড়ায়। পরিস্থিতি বেগতিক বুঝে শেষ অবধি কান ধরে উঠবস করে ক্ষমা চেয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় ভিডিও ছাড়লেন ওই যুবক।

মাত্র ১৩ সেকেন্ডের একটি ভিডিও। তাতে দেখা যাচ্ছে গত বিধানসভা নির্বাচনের সময়কালে ভোট প্রচারের লক্ষ্যে সাঁটানো পোস্টার। সেই পোষ্টারে মধ্যে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর পাশাপাশি রয়েছে চোপড়ার বিধায়ক হামিদুল রহমানের ছবি রয়েছে। সেই ছবিকে লক্ষ্য করেই একের পর এক ঘুষি মারতে থাকে এক যুবক। ভিডিওটি সামাজিক মাধ্যমে ছড়িতে পড়তে ভাইরাল হয়ে যায়। যদিও ভিডিওটির সত্যতা যাচাই করেনি উত্তরবঙ্গ সংবাদ। জানা গিয়েছে, ঘটনাটি চোপড়া ব্লকের মাঝিয়ালি গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকার। ঘটনায় বিভিন্ন মহলে হৈচৈ পড়ে যায়। এরপরই অন্য একটি ভিডিওতে ক্ষমা চাইতে দেখা যায় ওই যুবককে। সেই ভিডিওতে ওই যুবক জানায়, নেশাগ্রস্ত অবস্থায় সে এধরণের ভুল কাজ করেছে। সেক্ষেত্রে তাঁকে যেন ক্ষমা করে দেওয়া হয় তেমনই আর্জি তুলে ধরেন ওই যুবক।

- Advertisement -

তৃণমূল কংগ্রেসের মাঝিয়ালি অঞ্চলের চেয়ারম্যান একরামুল হক বলেন, ‘এধরণের একটি ভিডিও ভাইরাল হয়। ওই যুবক একটি চা কারখানার গার্ড হিসাবে নিযুক্ত ছিলেন। যেহেতু যুবকটি নেশার ঘোরে একাজ করেছেন এটা জানার পর বিধায়ক সাহেব ওই যুবককে ক্ষমা করে দিয়েছেন।’