ছিনতাই করতে গিয়ে গণপিটুনির শিকার ৩ দুষ্কৃতী, ব্যপক উত্তেজনা এলাকায়

279

রায়গঞ্জ, ৩১ জুলাইঃ রায়গঞ্জ শহরের কসবা মোড় এলাকায় বাইক ছিনতাই করতে গিয়ে ধরা ৩ দুষ্কৃতী গণপিটুনির শিকার হল। যদিও, অভিযুক্তদের পরে পুলিশের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে। শুক্রবার ঘটনাকে কেন্দ্র করে এলাকায় চাঞ্চল্য ছড়ায়। খবর পেয়ে রায়গঞ্জ থানার বিশাল পুলিশবাহিনী ঘটনাস্থলে পৌঁছায়। আহত ৩ জনকেই উদ্ধার করে রায়গঞ্জ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। জখম ৩ জনের রায়গঞ্জ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের শল্য বিভাগে চিকিৎসা চলছে। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, জখমদের নাম বিজয় সরকার, রাজেশ বিশ্বাস, নানু মন্ডল। বিজয় পেশায় গাড়ি চালক, নানু মন্ডল মাছ ব্যবসায়ী হলেও বর্তমানে ব্রাউন সুগারে আসক্ত। এর আগেও একাধিক জায়গায় চুরি ও ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটিয়েছে।

অভিযোগ, এদিন একটি বাইক থামিয়ে আরোহীর কাছ থেকে অভিযুক্তরা টাকা ছিনতাই করে। পাশাপাশি, ওই বাইক চালকের গর্ভবতী স্ত্রীকে মারধর করে বলে অভিযোগ। এরপরেই স্থানীয় বাসিন্দারা ছিনতাইবাজদের মারধর করেন। শুধু তাই নয় রড দিয়ে বেধড়ক মারধর অভিযুক্ত যুবক বিজয় সরকারের গলায় ক্ষুর চালিয়ে খুনের চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে। স্থানীয় বাসিন্দাদের বক্তব্য, দীর্ঘদিন ধরে কসবা সংলগ্ন এলাকায় দূরদূরান্ত থেকে নেশাগ্রস্ত যুবকরা ব্রাউন সুগার সেবন করে একের পর এক চুরি ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটিয়ে চলেছে। এদিন চলন্ত মোটরবাইকের আরোহীর গর্ভবতী স্ত্রীর গলার চেন ছিড়ে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। এরপরেই এলাকাবাসীরা জড়ো হয়ে ৩ যুবককে ধরে ফেলেন। কিন্তু, গ্রামের রাস্তা ধরে তারা পালাতে পারেনি। অভিযোগ, এলাকার মানুষ অভিযুক্তদের বেধড়ক মারধর করেন। ঘটনার খবর জানাজানি হতেই আশপাশের গ্রামের বাসিন্দারা ভিড় করতে থাকেন। কৌতুহলী মানুষের ভিড় ক্রমশ বাড়তে থাকে। অভিযুক্তদের পুলিশ বিশাল জনরোষ থেকে উদ্ধার করে রায়গঞ্জ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে।

- Advertisement -

এদিকে, রায়গঞ্জ শহর সহ শহরতলী এলাকায় ব্রাউন সুগারে আসক্ত যুবকদের চুরি-ছিনতাই সহ একাধিক সমাজবিরোধী কাজে লিপ্ত হওয়ার ঘটনায় এলাকাবাসী রীতিমতো আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন। গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান কমল দেবশর্মা জানান, তাঁর গ্রাম সংসদ এলাকায় ঘটনাটি ঘটেছে। পুলিশ ঘটনার তদন্ত করুক। তিনি আরও জানিয়েছেন, মারাইকুরা গ্রাম পঞ্চায়েতের একাধিক জায়গায় বিভিন্ন এলাকা থেকে যুবকরা এসে ব্রাউন সুগারের নেশা করছে। সমস্ত ঘটনা পুলিশকে জানানো হয়েছে। ব্রাউন সুগারে আসক্ত যুবকরাই একের পর এক চুরি ছিনতাইয়ের মতন ঘটনা ঘটিয়ে চলেছে। রায়গঞ্জ থানার এক পুলিশ আধিকারিক ঘটনার কথা স্বীকার করেছেন। ইতিমধ্যেই পুলিশ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে বলে তিনি জানিয়েছেন।