যৌথ অভিযানে বাজেয়াপ্ত দুই লক্ষ টাকার কাঠ  

498

রাঙ্গালিবাজনা: আলিপুরদুয়ার জেলার মাদারিহাট বীরপাড়া ব্লকে কাঠচুরি রুখতে এবার বনদপ্তরের সঙ্গে অভিযানে নামল পুলিশও। সোমবার সন্ধ্যায় দলগাঁও রেঞ্জের কর্মীদের সঙ্গে বীরপাড়া থানার অধীন গোপালপুর চা বাগান এলাকায় অভিযান চালান জয়গাঁর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কুন্তল বন্দ্যোপাধ্যায়।

বীরপাড়া থানার ওসি পালজার ভুটিয়া জানান, এদিন অভিযান চালিয়ে একটি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মাঠ থেকে  ৯টি গাছের গুঁড়ি বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। বাজেয়াপ্ত করা সেগুন কাঠের গুঁড়ির আনুমানিক বাজারদর প্রায় দুই লক্ষ টাকা।

- Advertisement -

পুলিশ সূত্রের খবর, ওই কাঠগুলি লুকিয়ে রাখার ঘটনায় মাদারিহাট থানা এলাকার চাঁপাগুড়ির এক ব্যক্তির নাম উঠে এসেছে। ওই ব্যক্তি দলমোর এলাকার এক কাঠ মাফিয়ার কাছ থেকে গাছের গুঁড়িগুলি কিনেছিলেন। এখবর জানার পর বাড়ি বাড়ি অভিযান চালায় পুলিশ। যদিও কেউ ধরা পড়েনি।

এদিকে, বনদপ্তরের জলপাইগুড়ি ডিভিশনের দলগাঁও রেঞ্জ সূত্রের খবর, বীরপাড়া সংলগ্ন দলমোর বনাঞ্চলের ওপর সবচেয়ে বেশি থাবা বসিয়েছে কাঠ মাফিয়ারা। মাফিয়াদের দশ বারোটি দল গাছ লুঠের কারবার চালাচ্ছে। কাটা গাছের একটা বড় অংশ পাগলি নদীর সেতু, হরিপুর হয়ে পাচার হয়ে যাচ্ছে ধুলাগাঁওয়ে। শিশুবাড়ির কয়েকজন পাচারকারী দলমোরের পাচারকারীদের সঙ্গে হাত মিলিয়ে ওই চোরা কারবার চালাচ্ছে। সোমবারের অভিযানে ওই পাচারচক্রের সঙ্গে শিশুবাড়ির চাঁপাগুড়ির যোগসূত্র সামনে এল।