জমি হাতিয়ে অসহায় দম্পতিকে ঘরছাড়া করার অভিযোগ, বিদ্ধ তৃণমূল

102

হরিশ্চন্দ্রপুর: অসহায় বৃদ্ধ দম্পতির জমির জোর করে দখল করে তাদেরকে ভিটেছাড়া করার অভিযোগ উঠল তৃণমূল নেতার বিরুদ্ধে। ভিটেছাড়া হয় আপাতত শীতের মধ্যেই খোলা আকাশের নিচে দিন কাটাচ্ছেন ওই বৃদ্ধ অসহায় দম্পতি। এমনই ঘটনা ঘটেছে হরিশ্চন্দ্রপুর থানা এলাকার তেতুলবাড়ি গ্রামে।

টানা তিনদিন ধরে শীতের মধ্যে খোলা মাঠের মধ্যেই পড়ে আছেন ৯০ বছরের শেখ ভুসরা ও তাঁর স্ত্রী বেগম বিবি। বয়সের ভার তো রয়েইছে তার পাশাপাশি তাঁরা প্রতিবন্ধী। কথাও স্পষ্ট বলতে পারেন না। হরিশ্চন্দ্রপুর থানায় এনিয়ে লিখিত অভিযোগও জানিয়েছেন কিন্তু কোনও কোনও লাভ হয়নি। কথা ছিল তাঁদের অন্যত্র অনেক কম দামের একটি জায়গা দেওয়ার। যার জন্যে ১০ হাজার টাকাও আগাম নেওয়াও হয়। কিন্তু সেই জমিও দেওয়া হয়নি।

- Advertisement -

দম্পতির দুই ছেলে পরিযায়ী শ্রমিক। ভিন রাজ্যেই বছরের পর বছর থাকে। রাস্তার ধারে দু কাঠা জমি। সেখানেই আশ্রয় ছিল তাঁদের। রাস্তার ধারের জায়গা হওয়ায় নজর পড়ে জমি মাফিয়াদের। স্থানীয় তৃণমূল নেতা তথা জমির কারবারি তথা ইমাম-মোয়াজ্জেম সংগঠনের হরিশ্চন্দ্রপুর-১ ব্লক সভাপতি। নাসিরুদ্দিনের বিরুদ্ধে অভিযোগ, তিনি ও তাঁর লোকজন জোর করে বৃদ্ধ দম্পতিকে ঘর থেকে বের করে তাঁদের বসত ভিটে বিক্রি করতে বাধ্য করেছেন। বিকল্প জায়গা না পেলে আমৃত্যু এভাবেই পড়ে থাকবেন বলে সাফ জানিয়েছেন ওই দম্পতি। যদিও এই প্রসঙ্গে কোনও মন্তব্য করবেন না বলে জানিয়ে দেন নাসিরুদ্দিন। তবে বৃদ্ধের প্রতিবেশী আব্দুল মতিন জানান,  ওই জমি হাতিয়ে নিতে ওদের জোর করা হয়েছে। সকলেই বিষয়টি জানেন। এতে তৃণমূলের বদনাম হচ্ছে। হরিশ্চন্দ্রপুর-১ ব্লক তৃণমূল সভাপতি মানিক দাস বিষয়টি নিয়ে খোঁজ নেবেন বলে জানিয়েছেন। এ প্রসঙ্গে হরিশ্চন্দ্রপুর থানা আইসি সঞ্জয় কুমার দাস জানান, সমস্ত বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।