পাহাড়ের তিন আসনে গুরুং শিবিরের প্রার্থীকে সমর্থনের সিদ্ধান্ত ঘিরে তৃণমূলে ক্ষোভ

122

শিলিগুড়ি: পাহাড়ের তিন আসনে তৃণমূলের তরফে গোর্খা জনমুক্তি মোর্চার বিমল গুরুং শিবিরকে সমর্থনের ঘোষনায় ক্ষোভ ছড়িয়েছে। একসময় পাহাড়ে অশান্তি সৃষ্টির দায়ে অভিযুক্ত বিমল গুরুংকে তৃণমূল কেন সমর্থন করবে সেই প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে। এদিন এক সাংবাদিক সম্মেলনে হিল তৃণমূলের সভাপতি লালবাহাদুর রাইকে পাশে বসিয়ে রাজ্য সভার সাংসদ শান্তা ছেত্রী ঘোষণা করেন তাঁরা পাহাড়বাসীকে গোর্খা জনমুক্তি মোর্চার বিমল গুরুং গোষ্ঠীকেই সমর্থনের আর্জি জানাচ্ছেন। গুরুং যেভাবে পাহাড় তরাই ডুয়ার্সের ১৫-থেকে ১৬ টি আসনে তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থীদের জেতাতে ময়দানে নেমেছেন সেই কথাও উল্লেখ করেন শান্তা। যদিও এই ঘোষণার পরই প্রশ্ন উঠে গিয়েছে যে তাহলে কি বিনয় তামাং গোষ্ঠীর ওপর থেকে সমর্থনের হাত তুলে নিল তৃণমূল।অথচ ২০১৭ সাল থেকে বিমল গুরুংয়ের বিরুদ্ধাচরণ করে রাজ্য সরকারের পাশে দাঁড়িয়ে পাহাড়ে শান্তি ফেরাতে বড় ভূমিকা নিয়েছিলেন বিনয় তামাং-অনীত থাপা শিবির। কিন্তু নির্বাচনে জয়লাভের স্বার্থে তৃণমূল সেই বিনয় অনীতদের সঙ্গে দূরুত্ব রচনা করায় দলের অন্দরেই প্রশ্ন উঠেছে। অনেকেই জানাচ্ছেন, দলের তরফে এমন কোনও স্পষ্ট নির্দেশিকা এখনও মেলেনি। সুতরাং বিমল গোষ্ঠীর প্রার্থীদেরই সমর্থন করতে হবে এমনটা নয়। বরং পাহাড়বাসী নিজের অভিজ্ঞতার ভিত্তিতেই ভোট দেবেন বলে মনে করছে তৃণমূলের একাংশ।