বিজেপির ঘর ভাঙতেই গ্রাম পঞ্চয়েতের দখল তৃণমূলের হাতে

131

মেটেলি: অবশেষ মেটেলি ব্লকের ইনডং মাটিয়ালি গ্রাম পঞ্চায়েতের বোর্ড দলীয়ভাবে দখল করল তৃণমূল কংগ্রেস। এই গ্রাম পঞ্চায়েত তৃণমূল দখল করার ফলে মেটেলি ব্লকের পাঁচটি গ্রাম পঞ্চয়েতেই তৃণমূলের দখলে থাকল। ইনডং মাটিয়ালি গ্রাম পঞ্চায়েতের মোট আসন সংখ্যা ১৮। শেষ পঞ্চয়েত নির্বাচনে তৃণমূল ৭টি, বিজেপি ৫টি, কংগ্রেস ৪টি ও সিপিএম ২টি আসনে জয় পায়। সেসময় কংগ্রেস থেকে ২ জন সদস্য তৃণমূলে যোগদান করায় তৃণমূলের দখলে যায় মোট ৯টি আসন। যদিও টসে জিতে যৌথভাবে বোর্ড দখল করে বিজেপি, সিপিএম এবং কংগ্রেস। প্রধানের পদে বসেন বিজেপির রাধিকা ওঁরাও, উপপ্রধানের দায়িত্ব বর্তায় কংগ্রেসের সিনু মুন্ডার ওপর।

সম্প্রতি প্রধান রাধিকা ওঁরাও সহ বিজেপির আর এক সদস্য বিশাল গোয়ালা তৃণমূলে যোগদান করেন। যদিও ২৪ ঘণ্টার ব্যবধানে বিশাল গোয়ালাকে দলে ফিরিয়ে নেয় বিজেপি। তবে, রাধিকা ওঁরাও তৃণমূলে যোগ দিতেই সংখ্যা গরিষ্ঠতা পায় তৃণমূল। বর্তমান সময়ে তৃণমূলের দখলে রয়েছে ১০টি আসন। তৃণমূল নেতা জোসেফ মুন্ডা বলেন, ‘রাধিকা ওঁরাও তৃণমূলে যোগদান করায় ইনডং মাটিয়ালি গ্রাম পঞ্চায়েত এখন তৃণমূলের সদস্য সংখ্যা হল ১০। যা বোর্ড দখলের ক্ষেত্রে সংখ্যাগরিষ্ঠ। এখন থেকে গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান তৃণমূলের। উপ-প্রধান মনোনয়নের জন্য দ্রুত অনাস্থা প্রস্তাব আনা হবে।

- Advertisement -

বিজেপির মেটেলি আপার সমতল মণ্ডল কমিটির সাধারণ সম্পাদক অমিত ছেত্রী বলেন, ‘আমাদের নির্বাচিত প্রধান রাধিকা ওঁরাও-কে তৃণমূল নেতৃত্ব ভুল বুঝিয়ে তাঁদের দলে নিয়ে গিয়েছে। রাধিকার ভুল ভাঙলে সে আবার বিজেপিতে ফিরে আসবে বলে আমরা মনে করি। ইতিমধ্যে একজন সদস্য তার ভুল বুজে বিজেপিতে ফিরে এসেছেন। অন্যদিকে, ইনডং মাটিয়ালি গ্রাম পঞ্চায়েতের উপ-প্রধান সিনু মুন্ডা বলেন, ‘বিষয়টি শুনেছি। আমরাও দলীয়ভাবে এবিষয়ে আলোচনায় বসব।’