বহিষ্কার করা হল তৃণমূলের এই দাপুটে সাংসদকে, জানুন কেন

304

নয়াদিল্লি: সংসদের মধ্যেই ‘অসংসদীয় আচরণ’ করায় তৃণমূল সাংসদ শান্তনু সেনকে গোটা বাদল অধিবেশনের জন্য বহিষ্কার করলেন রাজ্যসভার চেয়ারপার্সন ভেঙ্কাইয়া নাইডু। কেন্দ্রীয় তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী অশ্বিনী বৈষ্ণবের হাত থেকে কাগজ কেড়ে নিয়ে ছিঁড়ে ফেলার জন্যই তাঁকে এই শাস্তি দেওয়া হয়েছে।

শান্তনু সেনের বিরুদ্ধে স্বাধিকার ভঙ্গের নোটিশ এনেছিল কেন্দ্রীয় সরকার। সরকারের তরফে সংসদ বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ভি মুরলীধরণ এই প্রস্তাব আনেন। সরকারের সেই প্রস্তাবে সম্মতি দিয়েই শান্তনু সেনকে সাসপেন্ড করেন রাজ্যসভার চেয়ারপার্সন। যেভাবে মন্ত্রীর হাত থেকে কাগজ কেড়ে নিয়ে ছিঁড়ে ফেলা হয়েছে, তা অত্যন্ত নিন্দনীয় বলে জানান ভেঙ্কাইয়া নাইডু। তিনি জানিয়ে দেন, যা হয়েছে তা অসাংবিধানিক এবং সংসদীয় গণতান্ত্রিক ব্যবস্থার জন্য অপমানজনক।

- Advertisement -

এই শাস্তি ঘোষণার পরই তীব্র প্রতিবাদ করেন রাজ্যসভার তৃণমূল সাংসদরা। তাঁদের অভিযোগ, বৃহস্পতিবার সংসদ চলাকালীন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী হরদীপ সিং পুরি শান্তনু সেনের দিকে গালিগালাজ করে তেড়ে আসেন। কিন্তু তাঁর বিরুদ্ধে কোনও ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি। হরদীপ সিং পুরির বিরুদ্ধে পালটা রাজ্যসভার ডেপুটি চেয়ারম্যানের কাছে অভিযোগ দায়ের করেছেন তৃণমূল সাংসদরাও।