পনির তাজা রাখতে শৌচালয়ের জল, ক্ষোভ যাত্রীদের

110

কলকাতা: করোনা সংক্রমণের জেরে দূরপাল্লার ট্রেনের সংখ্যা বাড়াতে চাইছে না রেল কর্তৃপক্ষ। অন্যদিকে, শিয়ালদা স্টেশনে রমরমিয়ে চলছে পনির বাজার। যার ফলে ক্রেতা-বিক্রেতাদের ভিড়ে যাত্রীরা রীতিমত ক্ষোভ প্রকাশ করছে। অভিযোগ, আরপিএফের প্রকাশ্য মদতে স্টেশনের মধ্যে চলছে এই বাজার। বেআইনি পদ্ধতিতে পনির আনা হয়। শৌচালয়ের মধ্যে পনির রাখা হয়। সেই পনির তাজা রাখতে শৌচলয়ের জল ব্যবহার করা হচ্ছে। ফলে যাত্রীরাই ট্রেনের শৌচালয় ব্যবহার করতে পারেন না।

রোজ বিকেলে শিয়ালদহ সাউথ প্ল্যাটফর্মের মুখে হলদিরামের স্টলের সামনে এই বাজার বসে। যাত্রীদের অভিযোগ, প্রায় ৫০ জন পনির বিক্রেতা বিভিন্ন জেলা থেকে এসে ড্রামে, ট্রেতে, ঝুড়িতে পনির নিয়ে বসেন এই জায়গায়। জেলা থেকে মিষ্টি বিক্রেতা বা সাধারণ মানুষ এসে এখানে পনির কেনাবেচা করেন। ফলে অফিস থেকে ফেরার সময় যাত্রীদের যাতায়াতে চরম অসুবিধার সৃষ্টি হচ্ছে। পনির বিক্রেতারা জানিয়েছে, আরপিএফের সখ্যের ফলে মিলেছে বসার ছাড়পত্র।

- Advertisement -

স্টেশন কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, এটা চূড়ান্ত বেআইনি। বিষয়টি খতিয়ে দেখে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। মুর্শিদাবাদের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে ট্রেনে এই পনির আসে। এনিয়ে যাত্রীদের নানা অভিযোগ উঠলেও রেল কর্তৃপক্ষ এখনও কোনও ব্যবস্থা নেয় নি।