হলদিবাড়িতে তৃণমূলের কর্মী বৈঠক

367

হলদিবাড়ি: বিধানসভা ভোটকে পাখির চোখ করে দূরে থাকা দলীয় কর্মীদের পুণরায় দলের মূল স্রোতে ফিরিয়ে আনতে নিজেই কর্মীদের বাড়ি বাড়ি যাবেন তৃণমূলের জেলা কমিটির সভাপতি। শুক্রবার হলদিবাড়িতে আয়োজিত মহকুমা পর্যায়ের কর্মী বৈঠকে এমনটাই জানালেন কোচবিহারের তৃণমূলের জেলা কমিটির সভাপতি পার্থপ্রতিম রায়।

শুক্রবার বিকেলে হলদিবাড়ির সীমান্ত ভবনে আয়োজিত কর্মী বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন মেখলিগঞ্জের বিধায়ক অর্ঘ্য রায়প্রধান, মেখলিগঞ্জ মহকুমা কমিটির তিন কনভেনার পূরবী রায় প্রধান, অমিতাভ বিশ্বাস, উদয় রায়, তৃণমূল ছাত্রপরিষদের জেলা সভাপতি নরেন্দ্রনাথ দত্ত, হলদিবাড়ির প্রাক্তন ব্লক সভাপতি গোপাল রায়, মেখলিগঞ্জ যুব নেতৃত্ব মনোজ রায়, মেখলিগঞ্জ পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি নিয়তি সরকার ও হলদিবাড়ি পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি নূপুর বর্মন, পুরসভার প্রাক্তন চেয়ারম্যান শঙ্কর দাস সহ অন্যান্য নেতৃত্বরা।

- Advertisement -

বছর ঘুরলেই বিধানসভা ভোট। ভোটের আগে দলীয় কর্মীদের মনোবল বৃদ্ধি করে তাঁদের একত্রিত করে বিজেপির বিরুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়তে দলীয় নেতৃত্বদের নির্দেশ দেন তিনি। এছাড়াও বসে থাকা কর্মীদের মান ভঞ্জন করে দলের মূল স্রোতে ফিরিয়ে আনার নির্দেশও দেন তিনি। পার্থপ্রতিম রায় বলেন, বিধানসভা ভোটের আগে দলীয় কর্মীদের মনোবল বৃদ্ধি করতে ও আগামী দিনের কর্মসূচির বিষয়ে দলীয় নির্দেশ তৃণমূল কর্মীদের জানাতেই আজকের এই বৈঠকের আয়োজন করা হয়।

তিনি আরও বলেন, ৮ সেপ্টেম্বর বাংলার প্রতি কেন্দ্রের বঞ্চনা নিয়ে জেলাজুড়ে মিটিং মিছিল করা হবে। ১৪ তারিখ বাংলাকে অর্থনৈতিকভাবে বঞ্চনার অভিযোগে কেন্দ্রের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানানো হবে। কেন্দ্রের কাছে থেকে রাজ্য সরকারের আজও প্রায় ৫৩ হাজার কোটি টাকা পাওনা রয়েছে। ১৬ সেপ্টেম্বর কৃষক সংগঠনের কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হবে। কৃষিক্ষেত্রে কেন্দ্রের বঞ্চনার বিরুদ্ধে দলীয় পতাকা ও প্ল্যাকার্ড নিয়ে জমির আলে দাঁড়িয়ে বিক্ষোভ দেখাবেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। রেল, বিমান, প্রতিরক্ষা, টেলিকম, স্বাস্থ্য সহ বিভিন্ন কেন্দ্র সরকারের চাকরি থেকে ছাঁটাইয়ের বিরুদ্ধে ২০ সেপ্টেম্বর পথে নামবে তৃণমূল।