যুগলের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধারে চাঞ্চল্য

68

বর্ধমান: রবিবার সকালে যুগলের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধারের ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়াল পূর্ব বর্ধমানের রায়না থানার শুকুর গ্রামে। মৃতদের নাম সোমনাথ মালিক (৩২) ও গঙ্গা রুইদাস (২৭)। খবর পেয়ে রায়না থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে মৃতদেহ উদ্ধার করে। দেহ ময়নাতদন্তের জন্য এদিনই বর্ধমান হাসপাতাল পুলিশ মর্গে পাঠানো হয়েছে। পুলিশ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, সোমনাথ বিবাহিত। তাঁর বাড়ি রায়নার নতু অঞ্চলের শুকুর গ্রামে। তিনি পেশায় ট্র্যাক্টর চালক। গঙ্গার বাড়ি রায়নার বলিয়ারপুরে। বছর পাঁচেক আগে তাঁর স্বামী মারা যায়। এদিন সকালে শুকুর গ্রামের একটি গাছে সোমনাথ ও গঙ্গার ঝুলন্ত দেহ দেখতে পেয়ে স্থানীয় বাসিন্দারা পুলিশে খবর দেন। গঙ্গার দাদা রামকৃষ্ণ রুইদাস এদিন জানান, তাঁর বোন শনিবার সোমনাথের সঙ্গে রায়নায় পুজো দেখতে গিয়েছিলেন। কিন্তু রাতে তাঁরা আর বাড়ি ফেরেননি। রবিবার সকালে স্থানীয়রা দুজনের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধারের খবর দেন।

- Advertisement -

অন্যদিকে, সোমনাথের ভগ্নীপতি বিধান মালিক জানান, মাস দেড়েক আগে দু’জনে বিয়ে করেছিল। এরপর ওঁরা আলাদাই থাকছিলেন। বিষয়টি জানাজানি হতেই সোমনাথকে বাড়ি নিয়ে যাওয়া হয়। তবে কী কারণে দুজনে আত্মঘাতী হলেন, তা বুঝে উঠতে পারছেন না বলে জানিয়েছেন সোমনাথের পরিবারের সদস্যরা। তবে স্থানীয়রা মনে করছেন, সম্পর্কের টানা পোড়েনের জেরে যুগল আত্মঘাতী হয়ে থাকতে পারেন।