তৃণমূল পরিচালিত পঞ্চায়েত সমিতির সদস্যাকে মারধর, গ্রেপ্তার ২ বিজেপি কর্মী!

41

বর্ধমান: তৃণমূল পরিচালিত পঞ্চায়েত সমিতির সদস্যাকে মারধরের অভিযোগে দু’জনকে গ্রেপ্তার করল জামালপুর থানার পুলিশ। আক্রান্তের দাবি ধৃতরা বিজেপি কর্মী। যদিও, বেরুগ্রাম অঞ্চল তৃণমূলের সভাপতি শেখ আব্দুস সালাম দাবি করেছেন, ধৃত দু’জনই দলীয় কর্মী। অন্যদিকে, বিজেপি দাবি করেছে উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ধৃতদের বিজেপি কর্মী তকমা দেওয়া হয়েছে। ঘটনাটি পূর্ব বর্ধমান জেলার বেরুগ্রাম অঞ্চলের হৈবতপুর গ্রামের।

পুলিশ সূত্রে খবর, ধৃতরা পূর্ব বর্ধমানের বেরুগ্রাম অঞ্চলের হৈবতপুর গ্রামের বাসিন্দা নাম মুক্তিপদ কোলে এবং চরণ দাস। অভিযোগ, ১০০ দিনের কাজ নিয়ে সোমবার রাতে স্থানীয় তৃণমূল কার্যালয়ে আলোচনায় বসেছিলেন জামালপুর পঞ্চায়েত সমিতির সদস্যা অঞ্জনা দলুই। সেসময় বিজেপির লোকজন রড, লাঠি নিয়ে তাঁদের উপর হামলা চালায়। পঞ্চায়েত সমিতির সদস্যাকে মারধর করা হয় বলে অভিযোগ ওঠে। মারধরের ঘটনায় তিনি সঙ্গা হারান। ঘটনার পর তড়িঘড়ি ওই পঞ্চায়েত সদস্যা সহ আক্রান্তদের স্থানীয় হাসপাতালে পাঠানো হয় চিকিৎসার জন্য। এরপর রাতেই আক্রান্ত পঞ্চায়েত সদস্যা অঞ্জনা দলুই জামালপুর থানায় অভিযোগ দায়ের করেন। অভিযোগের ভিত্তিতে ওই দু’জনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

- Advertisement -

মঙ্গলবার ধৃতদের বর্ধমান আদালতে পেশ করা হয়। তদন্তকারী অফিসারের কাছে সপ্তাহে ১ দিন হাজিরা এবং অভিযোগকারী ও ঘটনার সাক্ষীদের ভীতি প্রদর্শন না করার শর্তে সিজেএম ধৃতদের জামিন মঞ্জুর করেন।