মেয়েকে খুন করেই আত্মঘাতী দম্পতি!

94

বর্ধমান: একই পরিবারের তিন সদস্যের অস্বাভাবিক মৃত্যুকে কেন্দ্র করে রহস্য দানা বাঁধছে বর্ধমান শহরের লাকুড্ডি সারতলা এলাকায়। পুলিশ সূত্রে খবর, বুধবার এক দম্পতি সহ তাঁদের কন্যা সন্তানের নিথর দেহ উদ্ধার হয়েছে। সুস্থ রয়েছে ওই দম্পতির বছর দশের ছেলে। ঘটনার রহস্যভেদে তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য় পাঠানো হয়েছে।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, মৃতরা বিকাশ কুমার সাউ(৪২), প্রিয়াঙ্কা সাউ(৩৮) ও সুরভী সাউ(১৩)। দম্পতির আদিবাড়ি উত্তরপ্রদেশের আজমগড়ে হলেও দীর্ঘ সময় ধরেই তাঁরা বর্ধমানে থাকতেন। বিকাশ সাউ পেশায় সবজি ব্যবসায়ী। স্থানীয়দের কথায়, এদিন সকালে ওই দম্পতির ছেলে কান্নাকাটি করতে করতে বাড়ি নিচে নেমে আসে। সে জানায় ঘরের মধ্যে তাঁর বাবা-মা গলায় ফাঁস লাগিয়ে ঝুলছে। বছর দশের ওই নাবালকের কথা শুনে ছুটে যান স্থানীয়রা। দেখতে পান বিকাশ কুমার সাউ ও প্রিয়াঙ্কা সাউ গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় ঝুলছে। অন্যদিকে বিছানায় পড়ে রয়েছে তাঁদের মেয়ে সুরভী সাউ-এর নিথর দেহ। তড়িঘড়ি সুরভীকে উদ্ধার করে বর্ধমান মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে পাঠানো হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।
স্থানীয় বাসিন্দারা জানান, পারিবারিক অশান্তি নজরে আসেনি। বিকাশ সাউ শান্ত স্বভাবের মানুষ ছিলেন। সেক্ষেত্রে ওই দম্পতি সহ তাঁদের কন্য়া সন্তানের অস্বাভাবিক মৃত্যুর ঘটনায় স্তম্ভিত হয়ে পড়েছেন সকলেই।

- Advertisement -