মায়ানমারে সেনা অভ্যুত্থান, নিষেধাজ্ঞা জারির হুমকি বাইডেনের

157

নিউজ ডেস্ক: মায়ানমারে সেনা অভ্যুত্থান নিয়ে এবার সুর চড়াল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। আর মার্কিন মুলুকের পথে হেঁটে মায়ানমারকে কড়া হুঁশিয়ারি রাষ্ট্রপুঞ্জ সহ ব্রিটেনেরও। সোমবার সেনার হাতে গ্রেপ্তার হন মায়ানমারের নেত্রী তথা স্টেট কাউন্সিলর আং সান সুকি। আটক করা হয় সেদেশের প্রেসিডেন্ট উইন মিন্তকেও। এরপরই কড়া বার্তা দিয়েছে আমেরিকা। মঙ্গলবার আমেরিকার নবনির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন আরও একধাপ সুর চড়িয়ে বলেন, ‘পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হলে তাঁর প্রশাসন মায়ানমারের উপর পুনরায় নিষেধাজ্ঞা জারি করবে।’

সেনা অভ্যুত্থানের নিন্দা করে আমেরিকার নব নির্বাচিত প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন বলেন, ‘বিশ্বাসযোগ্য নির্বাচনের মাধ্যমে জনতার ইচ্ছার যে প্রকাশ ঘটেছে, জোর করে তার উপর বাহিনীর শক্তিপ্রদর্শন করা উচিত নয়।’

- Advertisement -

রাষ্ট্রপুঞ্জ এবং ব্রিটেনের তরফেও এই অভ্যুত্থানের নিন্দা করা হয়েছে। রাষ্ট্রপুঞ্জের মহাসচিব আন্তোনিও গুতেরেস জানিয়েছেন, এই অভ্যুত্থান নিয়ে জরুরিকালীন বৈঠকে বসবে নিরাপত্তা পরিষদ। মায়ানমারের এই অভ্যুত্থানকে ‘গণতন্ত্রের উপর মারাত্মক আঘাত’ বলে চিহ্নিত করেছেন তিনি।

ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনও অভ্যুত্থানের কড়া নিন্দার পাশাপাশি সুকির আটককে ‘বেআইনি’ আখ্যা দিয়েছেন। এমনকি চিন যে এতদিন মায়ানমানের ব্যাপারে আন্তর্জাতিক হস্তক্ষেপের বিরোধীতা করে আসত, তাঁরাও এই ‘সমাস্যার সমাধানে’ সকল দেশকে পাশে থাকার আর্জি জানিয়েছে।