বদলির আবেদন শুনে মেজাজ হারালেন মন্ত্রী

143

দেরাদুন, ২৯ জুনঃ মুখ্যমন্ত্রীর কাছে আবেদন ছিল বদলির। আর এই ‘অপরাধে’ গ্রেফতারের নির্দেশ দেওয়া হল সরকারি স্কুল শিক্ষিকাকে। এমনকি আদেশ দেওয়া হয় চাকরি থেকে বরখাস্ত করারও।

ঘটনাটি উত্তরাখণ্ডের দেরাদুনে। বৃহস্পতিবার মুখ্যমন্ত্রী ত্রিবেন্দ্র সিং রাওয়াতের ‘জনতা দরবার’ অনুষ্ঠিত হয়েছিল। সেখানেই উত্তরকাশির নাউগোতে একটি প্রাইমারি স্কুলের প্রধান শিক্ষিকা ৫৭ বছরের উত্তরা বহুগুনা তাঁর বদলির জন্যে আবেদন করেছিলেন।

- Advertisement -

জনতা দরবারে ওই শিক্ষিকা জানান, দীর্ঘ ২৫ বছর ধরে তাঁর বাড়ি থেকে বহু দূরের কর্মস্থানে থাকতে হয়েছে। সেখান থেকে যাতে দ্রুত বদলি করা হয় সেই আবেদন জানিয়েছিলেন তিনি। তবে তাঁর বিরুদ্ধে অভিযোগ আনা হল মুখ্যমন্ত্রীর উপস্থিতিতে তিনি অভদ্র এবং অশালীন ভাষা ব্যবহার করেছেন।

একটি ভিডিয়ো ফুটেজে দেখা যাচ্ছে কিভাবে মুখ্যমন্ত্রী রাওয়াত নিজের মেজাজ হারিয়েছেন ।

প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী হরিশ রাওয়াত জানিয়েছেন, ‘আমাদের সিস্টেম এতটাই কঠিন হৃদয়ের হয়ে গিয়েছে জেনে খুবই ব্যাথিত আমি। একজন বিধবা মহিলা দীর্ঘ ২৫ বছর একা এতদূরে থাকছেন জেনেও প্রশাসন কোনও ব্যবস্থা নিতে ইচ্ছুকই নয়!’ তবে গ্রেফতার হওয়ার কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই শিক্ষিকাকে ছেড়ে দেয় পুলিশ।