র‍্যাশন ডিলারকে ঘিরে বিক্ষোভ চাঁচলে

382

মুরতুজ আলম, সামসী: সরকারি নির্দেশমতো র‍্যাশন সামগ্রী না মেলায় ডিলারকে ঘিরে বিক্ষোভ দেখালেন শতাধিক গ্রাহক। ঘটনাটি ঘটেছে চাঁচল-২ ব্লকের জালালপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের হজরতপুর গ্রামে। র‍্যাশন ডিলারকে প্রায় ছয় ঘণ্টা আটকে রেখে বিক্ষোভ দেখান গ্রাহকরা। ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌঁছে পরিস্থিতি সামাল দেয়। ওই র‍্যাশন ডিলারের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ খতিয়ে দেখে ব্যবস্থা গ্রহণের আশ্বাস দেন চাঁচল-২ বিডিও অমিত কুমার সাউ।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, লকডাউনের পর ১ মে থেকে দ্বিতীয়বারের জন্য র‍্যাশন সামগ্রী বিলি শুরু হয়। শনিবার র‍্যাশন সামগ্রী বিলির দ্বিতীয় দিন। সকাল থেকে হজরতপুর র‍্যাশন ডিলারের বাড়িতে ভিড় জমান গ্রাহকরা। তাঁরা অভিযোগ করেন, শুক্রবার র‍্যাশন সামগ্রী মাথাপিছু বরাদ্দের চেয়ে অনেকটাই কম দেওয়া হয়েছিল। এতে ক্ষুব্ধ গ্রাহকরা এদিন ডিলারকে আটকে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন। সরকারি নির্দেশমতো মাথাপিছু বরাদ্দ র‍্যাশন সামগ্রীর দাবি জানিয়েছেন গ্রাহকরা।

- Advertisement -

আরও পড়ুন: ব়্যাশন কেলেঙ্কারি: ডিলারের বাড়িতে অগ্নিসংযোগ ক্ষিপ্ত জনতার

চাঁচলের এসডিপিও সজলকান্তি বিশ্বাস বলেন, ‘র‍্যাশন বিলিতে যাতে সামাজিক দূরত্বের বিষয়টি মানা হয় তা মহকুমা এলাকার সব ডিলারদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।’

র‍্যাশন ডিলার জিয়াউল হক বলেন, ‘গ্রাহকদের দাবি-দাওয়া মেনে নেওয়া হয়েছে। সরকারি তালিকা অনুযায়ী র‍্যাশন সামগ্রী দেওয়া হবে। সামান্য সমস্যা হয়েছিল। গ্রাহকদের সঙ্গে আলোচনায় বসে তা মিটমাট করে নেওয়া হয়েছে। গ্রাহকদের মধ্যে র‍্যাশন সামগ্রী বিলি পুনরায় চালু করা হয়েছে।’

আরও পড়ুন: কালচিনিতে কিশোরীকে ধর্ষণের অভিযোগ প্রতিবেশীর বিরুদ্ধে

চাঁচল-২ বিডিও অমিত কুমার সাউ বলেন, ‘হজরতপুরের র‍্যাশন ডিলারকে স্পষ্ট বলা হয়েছে, লকডাউনে গ্রাহকদের মধ্যে ঠিকঠাকভাবে সরকারি তালিকা অনুযায়ী র‍্যাশন সামগ্রী বিতরণ করা না হলে কড়া ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’