ইতিহাসের পুনরাবৃত্তির আশায় ইঞ্জিনিয়ার

ম্যাঞ্চেস্টার : বয়স এখন ৮৩। স্মৃতি এখনও উজ্জ্বল।

প্রায় ৫০ বছর আগে বিলেতের মাটিতে ভারত যখন প্রথম টেস্ট সিরিজ জিতেছিল, সেই দলের অন্যতম সদস্য ফারুখ ইঞ্জিনিয়ারের স্মৃতিতে এখনও তাজা সেই দিনগুলো। ভারতীয় ক্রিকেটের সেই সোনালী অধ্যায় আজও ক্রিকেটপ্রেমীদের মনে রয়েছে, তা নিয়ে খুব একটা নিশ্চিত নন তিনি। তবে অতীতের প্রসঙ্গ উঠলে আজও আবেগে ভেসে যান ইঞ্জিনিয়ার। বিশ্বাস করেন, বিলেতের মাটিতে ভারতীয় ক্রিকেটের এমন সাফল্য আবার ফিরবে। হয়তো চলতি সফরেই বিরাট কোহলিরা সিরিজ জিতবেন।

- Advertisement -

নটিংহ্যামের ট্রেন্ট ব্রিজে ভারত বনাম ইংল্যান্ড সিরিজের প্রথম টেস্টে মাঠে ছিলেন তিনি। টিম ইন্ডিয়ার জয় দেখা হয়নি। বৃষ্টির কারণে ম্যাচ ড্র নিয়ে হতাশা তাঁরও রয়েছে। লর্ডসে দ্বিতীয় টেস্টে ভারতের অবিশ্বাস্য জয় বাকিদের মতো কিংবদন্তি ফারুখকেও নাড়িয়ে দিয়েছে। সেই আবেগ থেকে তিনি আজ বলেন, কোহলির ভারত এবার বিলেতের মাটিতে সিরিজ জিততেই পারে। ভাল সম্ভাবনা রয়েছে ওদের। লর্ডসে কোহলিদের জয় আমায় তৃপ্তি দিয়েছে।

অনেকটা একইরকম অনুভূতি হয়েছিল তাঁর ১৯৭১ সালের সিরিজে। ওভালে সিরিজ জয়ের প্রতিটা মুহূর্ত আজও তাঁর স্মৃতিতে উজ্জ্বল। ইঞ্জিনিয়ারের কথায়, বিশ্ব ক্রিকেটের মানচিত্রে ইংল্যান্ড সিরিজ জয়ের মাধ্যমে ভারতকে তুলে ধরেছিলাম আমরা। ওই সাফল্যের অনুভতি কোনওদিনও ভোলার নয়। শক্তিশালী ইংল্যান্ডকে তাঁদের মাটিতে হারিয়ে টেস্ট ও সিরিজ জয়ে ইঞ্জিনিয়ারেরও ভূমিকা ছিল।

ফারুখের কথায়, ভারতীয় ক্রিকেটপ্রেমীরা ওই ঐতিহাসিক জয়ের কথা আজও মনে রেখেছেন কি না, নিশ্চিত নই আমি। তবে একটা কথা বলব, বারবার চাপে পড়েও দুর্দান্তভাবে ওই সিরিজ জিতেছিলাম আমরা। কাজটা একেবারেই সহজ ছিল না। আর ওভালে শেষ টেস্টে সাফল্যের পিছনে দলের সবার অবদান ছিল। কোহলির ভারতের লর্ডস জয়ের মধ্যেও দলগত সাফল্যের তাগিদ দেখতে পাচ্ছেন তিনি।