হাথরসের ঘটনার প্রতিবাদে আন্দোলনের পথে জেলা তৃণমূল কংগ্রেস

245

আসানসোল: উত্তরপ্রদেশের হাথরসের ঘটনা শুধু নিন্দাজনক নয় একবারে ন্যাক্কারজনক ঘটনা। তার প্রতিবাদে জনমত গড়ে তুলতে আন্দোলনে নামতে চলেছে পশ্চিম বর্ধমান জেলা তৃণমূল কংগ্রেস নেতৃত্ব। শনিবার দুপুরে আসানসোলের উষাগ্রামের অগ্নিকন্যা ভবনে পশ্চিম বর্ধমান জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের তরফে সাংবাদিক সম্মেলনে এ কথা জানানো হয়।

এদিন সাংবাদিক সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন রাজ্যের শ্রম ও আইন মন্ত্রী তথা পশ্চিম বর্ধমান জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের চেয়ারম্যান মলয় ঘটক, আসানসোল দক্ষিণের বিধায়ক তথা আসানসোল দূর্গাপুর উন্নয়ন পর্ষদের চেয়ারম্যান জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের মুখপাত্র তাপস বন্দ্যোপাধ্যায়, আসানসোল পুরনিগমের মেয়র পাণ্ডবেশ্বরের বিধায়ক জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি জিতেন্দ্র তেওয়ারি, দূর্গাপুরের (পশ্চিম) বিধায়ক জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের বিশ্বনাথ পাড়িয়াল ও শ্রমিক সংগঠন আইএনটিটিইউসির কেকেএসসির সাধারণ সম্পাদক তথা জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের কো-অর্ডিনেটর হরেরাম সিং প্রমুখ।

- Advertisement -

জেলা সভাপতি জিতেন্দ্র তেওয়ারি বলেন, ‘উত্তরপ্রদেশের সরকার ওই কিশোরীর পরিবারের সঙ্গে কি ধরনের আচরণ করছে গত কয়েকদিন ধরে তা সারাদেশ দেখছে। জেলাশাসক গিয়ে হুমকি দিচ্ছেন। নির্বাচিত জন প্রতিনিধি, সাংসদদের ঢুকতে দেওয়া হচ্ছে না। দলের মহিলা সাংসদদের গায়ে হাত দিয়েছে পুরুষ পুলিশ। আমরা এর তীব্র বিরোধিতা করছি। আমরা জেলাজুড়ে এদিন থেকে মিছিল সভা করব।’

জেলা চেয়ারম্যান বলেন, ‘যাঁরা বলেন বাংলায় আইনশৃঙ্খলা নেই, তাঁরা দেখুক, বিজেপি শাসিত উত্তর প্রদেশে কি হচ্ছে। শুধু উত্তরপ্রদেশই নয়, বিজেপি শাসিত সব রাজ্যে একই ঘটনা ঘটছে৷ ঢুকতে দেওয়া হচ্ছে না সংবাদমাধ্যমকেও।’ জেলার মুখপাত্র বলেন, ‘রাজ্য নেতৃত্বর নির্দেশ মতো জেলার প্রতিটি ব্লকে এর প্রতিবাদ করা হবে।’