বনবস্তিতে হাতির হানা, ক্ষতিগ্রস্ত স্কুলঘর

113

ক্রান্তি: খাওয়ারের লোভে ফের স্কুলে হানা দিল বুনো হাতি। রবিবার গভীর রাতে রাজাডাঙ্গা গ্রাম পঞ্চায়েতের মাগুরমারি বনবস্তি এলাকার আপালচাঁদ ফরেস্ট ভিলেজ প্রাইমারি স্কুলে মিড ডে মিলের চাল খাওয়ার লোভে একটি বুনো হাতি হামলা চালায়। স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, খাওয়ারের সন্ধানে বারবার স্কুলে হানা দিচ্ছে বুনো হাতি। এ নিয়ে ওই স্কুলে চারবার বুনো হাতির হামলার ঘটনা ঘটল। ওই স্কুলের শিক্ষক বিশ্বজিত ওরাওঁ জানান, এদিন বুনো হাতিটি স্কুলের ব্যাপক ক্ষতি করেছে। স্কুলঘরের টিন উপড়ে ফেলেছে। স্কুলঘরের দেওয়াল ভেঙে ফেলেছে। স্কুলের একটি ঘরে মিড ডে মিলের জন্য এক বস্তা চাল রাখা ছিল। দেওয়াল ভেঙে হাতিটি সব চাল খেয়ে নিয়েছে।

স্কুলঘরটিকে বাঁচানোর জন্য দেওয়ালের দাবি তুলেছেন স্কুল কর্তৃপক্ষ। ঘন কুয়াশার জন্য বুনো হাতিটিকে ঠাহর করা যায়নি বলে এলাকার বাসিন্দারা জানান। স্থানীয় গ্রাম পঞ্চায়েত সদস্য সুমন ওরাওঁ জানান, বনবস্তির তিনটি স্কুলেই একাধিকবার বুনো হাতি হামলা চালিয়েছে। মাগুরমারি বনবস্তির আপালচাঁদ ফরেস্ট ভিলেজ প্রাইমারি স্কুলেই বারবার হামলার ঘটনা ঘটছে। মনে হচ্ছে খুব শীঘ্রই বুনো হাতি স্কুল ঘরটি ভেঙে গুঁড়িয়ে দেবে। তিনি বন দপ্তরের কাছে এলিফ্যান্ট ফেন্সিংয়ের দাবি তুলেছেন। বন দপ্তরের আপালচাঁদ রেঞ্জের বিট অফিসার ধুর্জটি সিং জানান, জয়েন্ট ফরেস্ট ম্যানেজমেন্ট কমিটি দ্রুত ফেন্সিং মেরামতের কাজে হাত দেবে। আর ক্ষতিপূরণের জন্য আবেদন করা হলে বন দপ্তরের নিয়মানুযায়ী তা দেওয়া হবে।

- Advertisement -