জাঁকিয়ে শীত রাজ্য জুড়ে, ফের নামল পারদ

1695

কলকাতা: ফের তাপমাত্রার পারদ নেমেছে। বৃহস্পতিবার সকাল থেকে কনকনে ঠাণ্ডা অনুভূত হচ্ছে উত্তরবঙ্গে। পাশাপাশি ঘন কুয়াশা রয়েছে জেলায়। এদিন উত্তরবঙ্গের দার্জিলং, কালিম্পং, আলিপুরদুয়ার, কোচবিহার ও জলপাইগুড়িতে হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। বাকি জেলাগুলির আবহাওয়া শুকনো থাকবে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া দপ্তর। তবে আগামী ২৪ ঘণ্টায় রাতের তাপমাত্রা ২-৩ ডিগ্রি পর্যন্ত বাড়তে পারে। তারপরের তিনদিন তাপমাত্রা ২-৩ ডিগ্রি পর্যন্ত কমতে পারে। এছাড়াও জেলাগুলিতে মাঝারি কুয়াশা দেখা দিতে পারে বলে জানাচ্ছে হাওয়া অফিস। অন্যদিকে, এদিন কলকাতার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। যা স্বাভাবিকের থেকে ১ ডিগ্রি বেশি। সর্বোচ্চ তাপমাত্রা থাকবে ২৭.২ ডিগ্রি সেলসিয়াস, যা স্বাভাবিকের থেকে ১ ডিগ্রি বেশি। আবহাওয়া দপ্তর সূত্রে জানা গিয়েছে, শুক্রবার গোটা রাজ্যেই পারদ আরও নামবে। এদিন সকালে শহরে ঘন কুয়াশা থাকলেও বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে আকাশ আংশিক মেঘলা হবে জানিয়েছে আবহাওয়া দপ্তর। কুয়াশার দাপট রয়েছে দক্ষিণবঙ্গের বেশ কয়েকটি জেলায়।

আবহাওয়া দপ্তরের পূর্বাভাস অনুযায়ী, আগামী ৪৮ ঘন্টায় গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের জেলাগুলিতে আবহাওয়া শুকনো থাকবে। আগামী দু’দিন গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গের বেশ কয়েকটি জায়গায় মধ্যম মানের কুয়াশা থাকতে পারে বলে জানিয়েছে আবহাওয়াবিদরা। এছাড়াও আগামী ২৪ ঘণ্টায় রাতের তাপমাত্রা ২-৩ ডিগ্রি পর্যন্ত বাড়তে পারে। পরের তিনদিন তাপমাত্রা ২-৩ ডিগ্রি পর্যন্ত কমতে পারে। সপ্তাহের শেষের দিকে তাপমাত্রা নামতে পারে বলে জানানো হয়েছে। উত্তর ও উত্তর-পশ্চিমের শীতল হাওয়ার আগমনের জন্য শীতের প্রভাব পড়বে দক্ষিণবঙ্গে। তবে তাপমাত্রা ফের বাড়বে রবিবার থেকে। আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর সূত্রে খবর, বঙ্গোপসাগরে একটি বিপরীতমুখী ঘূর্ণাবর্ত রয়েছে। যার জেরে শহরে প্রচুর পরিমাণে দক্ষিনী হাওয়া প্রবেশ করেছে। যা কুয়াশা বাড়িয়েছে, বৃদ্ধি করেছে কলকাতার তাপমাত্রা। তবে বৃহস্পতিবারই তাপমাত্রা ফের ১৫-তে নেমেছে।

- Advertisement -

পাশাপাশি, সমগ্র উত্তর ভারত জুড়েই জোরাল শীতের প্রভাব। এদিন উত্তর ভারতের একাধিক রাজ্য পঞ্জাব, হরিয়ানা, চণ্ডিগড়, দিল্লি, উত্তরখণ্ড এবং উত্তর প্রদেশের কিছু অংশে শৈত্যপ্রবাহের সতর্কতা জারি করা হয়েছে। পাশাপাশি রাজ্যগুলিতে ঘন কুয়াশার সতর্কতা জারি হয়েছে। আবহাওয়া দপ্তরের পূর্বাভাস অনুযায়ী, উত্তর পশ্চিম ভারতে পশ্চিমী ঝঞ্ঝা তৈরি হচ্ছে। যার জেরে কাশ্মীর, লাদাখ, হিমাচল প্রদেশ, উত্তরাখণ্ডে ২২ জানুয়ারি থেকে ২৪ জানুয়ারির মধ্যে বৃষ্টির সঙ্গে তুষারপাতের সতর্কবার্তা জারি করা হয়েছে।