পথ দুর্ঘটনায় মৃত্যু মায়ের, আশঙ্কাজনক ৪ মাসের শিশু

589

রায়গঞ্জ: পথ দুর্ঘটনায় মৃত্যু হল এক মহিলার। গুরুতর জখম হয়েছে তাঁর চার মাসের শিশু। ঘটনাটি ঘটেছে রায়গঞ্জ থানার ভাতুন গ্রাম পঞ্চায়েতের ঘোষপাড়া এলাকায়। এই ঘটনার প্রতিবাদে রাস্তা অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখায় উত্তেজিত জনতা।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, মৃতার নাম মেহেরুন নেসা। গুরুতর জখম শিশুর নাম মৈইনুর খাতুন। স্থানীয় সূত্রে খবর, চার মাসের সন্তানকে নিয়ে দাদার বাইকে করে ওই মহিলা ভাতুন গ্রাম পঞ্চায়েতের কাচনা বাড়িগ্রাম থেকে ভাটোল হাট সংলগ্ন তাজপুর গ্রামে ফিরছিলেন। সেই সময় একটি বেপরোয়া বালি বোঝাই ট্রাক্টর বাইকটিকে সজোরে ধাক্কা মারে। ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় ওই মহিলার। কোল থেকে ছিটকে গুরুতর জখম হয় ওই শিশু। তড়িঘড়ি স্থানীয়রা শিশুটিকে উদ্ধার করে রায়গঞ্জ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে ভর্তি করান। তবে শিশুটির অবস্থা অবনতি হওয়ায় তাকে উত্তরবঙ্গ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে রেফার করেন কর্তব্যরত চিকিৎসক।

- Advertisement -

এদিকে, ঘটনার পরই উত্তেজনা ছড়ায় গোটা এলাকায়। ঘটনার প্রতিবাদে রাস্তা অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন স্থানীয়রা। ট্রাক্টরটিতে আগুন ধরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করে ক্ষুব্ধ জনতা। তবে ঘটনাস্থলে পৌঁছোয় রায়গঞ্জ থানার পুলিশ। সেই সময় স্থানীয়রা পুলিশের গাড়িতে ভাঙচুর চালানোর চেষ্টা করেন বলে অভিযোগ। ঘণ্টা তিনেক পর পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে। অবরোধ তুলে নেন স্থানীয়রা।

স্থানীয়দের অভিযোগ, গ্রামীণ রাস্তায় বড় গাড়ি ও বালির ট্রাক্টর চলাচলে নিষিদ্ধ করেছে পুলিশ প্রশাসন। তা সত্ত্বেও প্রতিদিন ওই রাস্তা দিয়ে গাড়ি চলাচল করছে। স্থানীয় গ্রাম পঞ্চায়েত প্রধান ইউসুব আলি বলেন, ‘বড় বড় লরি ও বালি বোঝাই ট্রাক্টরের দাপাদাপিতে অতিষ্ট গ্রামবাসীরা। পুলিশ প্রশাসন ও ভূমি সংস্কার দপ্তরকে জানিয়েও কোনও কাজ হয়নি। বালি বোঝাই ট্রাক্টরের জন্যই মৃত্যু হয়েছে এক গৃহবধূর। এলাকায় উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। পরে আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এনেছি।’