রঘুনাথগঞ্জ, ৫ নভেম্বরঃ ভিন রাজ্যে কাজ করতে গিয়ে ফের শ্রমিক মৃত্যুর ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়াল এলাকায়। জানা গিয়েছে, মৃতের নাম বিনারুল শেখ(৪০)। তাঁর বাড়ি মুর্শিদাবাদের রঘুনাথগঞ্জ বিধানসভার সম্মতিনগর গ্রামে।

মৃতের পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে, ওই ব্যক্তি দীর্ঘ কয়েকবছর ধরেই ছত্তিশগড়ের রায়পুরে রাজমিস্ত্রীর কাজ করতেন। সোমবার রাতে সেখানে যে ঠিকাদারের কাছে তিনি কাজ করতেন তাঁর কাছে নিজের পাওনা টাকা চাইতে গেলে রাস্তায় তাঁকে বাঁশ দিয়ে পিটিয়ে মারা হয়। গুরুতর আহত অবস্থায় তাঁকে হাসপাতালে ভরতি করা হলে মঙ্গলবার মৃত্যু হয় তাঁর। জানা গিয়েছে, এদিন হাসপাতালের তরফে তাঁর পরিবারের কাছে খবর পাঠানো হয়। ঘটনায় মৃতের পরিবারের পাশে দাঁড়িয়ে এলাকার বিধায়ক আখরুজ্জামান বলেন, ‘এই ধরণের ঘটনা নিন্দনীয়। বিজেপি শাসিত রাজ্যে এই ধরণের ঘটনা প্রায় দিনই ঘটে চলেছে। এর আগে আমাদের এলাকার এক যুবক ঝাড়খণ্ডে কাজ করতে গিয়ে সেখানেও তাঁকে পিটিয়ে ধারালো অস্ত্র দিয়ে খুন করা হয়। এবার বানিরুল শেখ নামে এক শ্রমিক যে দিনমজুর হিসেবে ছত্তিশগড়ে কাজ করতে গিয়েছিল সেখানে তাঁকে মারা হয়। রাজ্যের বহু অসংগঠিত ঠিকা শ্রমিক যাঁরা দেশের বিভিন্ন জায়গায় দিনমজুরের কাজ করে। এই সমস্ত ঘটনা বারবার প্রমাণ করছে আমাদের দেশের বিজেপি সরকার তাঁদের সুরক্ষা দিতে ব্যর্থ। দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে এই রাজ্যেও বহু শ্রমিক নিজের রুজির জন্য কাজ করতে আসেন। আমাদের রাজ্যে এই ধরণের ঘটনা কোনোদিন ঘটেনি। আমরা দেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে এই বিষয়গুলি জানতে চাই। সেই সঙ্গে এই ব্যর্থতার কারণে অমিত শার পদত্যাগেরও দাবি জানাচ্ছি। আগামী ৭ই নভেম্বর মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে বিধায়কদের একটি সভা রয়েছে। আমি সেখানে ব্যক্তিগতভাবে এই পরিবারের জন্য সরকারি সাহায্যের কথা বলব মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে। বানিরুলের মৃতেদেহ আগামীকালের মধ্যে ফিরিয়ে আনার জন্য ব্যক্তিগতভাবে আমি ছত্তিশগড়ে কথা বলেছি।’